সোমবার, ০৩ অক্টোবর ২০২২, ০১:১৬ পূর্বাহ্ন

‘নেতাদের সঙ্গে যোগাযোগ করে দল টিকিয়ে রেখেছিলেন বঙ্গমাতা’

Reporter Name
  • Update Time : মঙ্গলবার, ৯ আগস্ট, ২০২২
  • ৫৩ Time View

ডেস্ক নিউজ : ‘বঙ্গবন্ধু জেলে গেলে তাঁর অবর্তমানে আওয়ামী লীগের কর্মীদের রক্ষা করতেন বঙ্গমাতা ফজিলাতুন নেছা। দলের নেতাদের সঙ্গে যোগাযোগ করে দলকে সবচেয়ে দুঃসময়ে টিকিয়ে রেখেছিলেন বঙ্গমাতা। পাকিস্তানি সামরিক জান্তা ও গোয়েন্দাদের রক্তচক্ষু উপেক্ষা করে তিনি এসব করে গেছেন। এতটা দুঃসময়েও তিনি নিজের জন্য কোনো খরচ পর্যন্ত করতেন না।

টাকা-পয়সা যা জমাতেন সবটুকুই বঙ্গবন্ধু ও সংগঠনের জন্য খরচ করতেন। ’ বঙ্গমাতার স্মরণে কথাগুলো বলেছেন শিক্ষাবিদ ও শহীদ জায়া শ্যামলী নাসরিন চৌধুরী। গতকাল সোমবার (৮ আগস্ট) জাতীয় প্রেস ক্লাবে বঙ্গমাতা ফজিলাতুন নেছা মুজিবের ৯২তম জন্মদিনে ‘সম্প্রীতি বাংলাদেশ’-এর আয়োজনে ‘বঙ্গমাতা : ইতিহাসের সাহসী মানুষ’ শীর্ষক আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথির বক্তব্যে পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান বলেন, ‘আমি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কাজ করি। নেত্রী কেবিনেট মিটিংয়ে তাঁর মায়ের মতো কথা বলেন। টুঙ্গিপাড়ায় মায়ের সঙ্গে রান্না করার গল্পও করেন আমাদের সঙ্গে। ’

মন্ত্রী আরো বলেন, জননেত্রী শেখ হাসিনাও তাঁর পিতার মতোই মাটির মানুষ। তিনি কৃষক, শ্রমিক সকলকে নিয়ে কাজ করে চলেছেন; যেমনটা জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুকে করতে দেখেছি। তাঁদের দুজনের পেছনেই বঙ্গমাতার অপরিসীম অবদান রয়েছে। বঙ্গমাতাই তাঁদের সফলতার পেছনে ছিলেন সব সময়। এখন তাঁর অবদানকে আড়াল থেকে আলোয় আনা হচ্ছে। শিক্ষাবিদ ও ডাকসুর সাবেক ভিপি মাহফুজা খানম বলেন, “উনসত্তরে আটক বঙ্গবন্ধুকে বঙ্গমাতা বলেছিলেন, ‘মুচলেকা দিয়ে প্যারোলে মুক্তি নেবেন না। আপনার বিরুদ্ধে করা মামলা টিকবে না। ’ পরবর্তীতে গণ-অভ্যুত্থানের মাধ্যমে বঙ্গবন্ধু বিনা শর্তে মুক্তি পান। ছয় দফার আন্দোলনকে সফল করার জন্যও গুরুত্বপূর্ণ সকল পদক্ষেপ নিয়েছিলেন বঙ্গমাতা ফজিলাতুন নেছা মুজিব। আমি নিজে তার সাক্ষী। ”

শিক্ষাবিদ ও অধ্যাপক ড. সৈয়দ আনোয়ার হোসেন বলেন, বঙ্গবন্ধুর হৃদয়ের চিকিৎসক ছিলেন বঙ্গমাতা।আলোচনাসভায় সভাপতির বক্তব্যে পীযূষ বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, একবার পত্রিকা বের করতে সমস্যায় পড়ে যান গাফ্ফার চৌধুরী। বঙ্গবন্ধু তাঁকে টাকা দেওয়ার কথা বললেও রাতেই গ্রেপ্তার হন তিনি। তাঁকে নিয়ে যাওয়া হয় জেলে। তখন বঙ্গমাতা গাফ্ফার চৌধুরীকে ডেকে টাকা দিয়ে বলেন, ‘বঙ্গবন্ধু আপনাকে এই টাকা দিতে বলেছেন। ’ এতটা দায়িত্বশীল ছিলেন তিনি। তাঁর বুদ্ধিমত্তা ও দায়িত্বশীলতার কথা বলে শেষ করা যাবে না। আলোচনাসভায় আরো উপস্থিত ছিলেন সমাজের গুণীজন ও বিশিষ্টজনরা।

 

 

কিউএনবি/আয়শা/০৯ অগাস্ট ২০২২, খ্রিস্টাব্দ/সন্ধ্যা ৬:২৩

সম্পর্কিত সকল খবর পড়ুন..

আর্কাইভস

October 2022
MTWTFSS
 123
45678910
11121314151617
18192021222324
252627282930 
© All rights reserved © 2022
IT & Technical Supported By:BiswaJit
themesba-lates1749691102