১৫ই নভেম্বর, ২০১৮ ইং | ১লা অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | সন্ধ্যা ৬:৩৩

অচিরেই উন্নয়নে দেশের অন্যতম জেলা হবে শরীয়তপুর : জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান

 

বিশেষ প্রতিবেদক : শরীয়তপুর জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও জেলা আ’লীগ সভাপতি ছাবেদুর রহমান খোকা সিকদার বলেছেন, এক সময়ের অবহেলিত শরীয়তপুর জেলা অচিরেই দেশের উন্নত ও অন্যতম জেলায় পরিণত হবে। শেখ হাসিনা ক্ষমতায় এলেই শরীয়তপুরের উন্নয়ন হয়।

তিনি বলেন, আমাদের শরীয়তপুরের উপর দিয়ে পদ্মা সেতু হচ্ছে। এ পাড়ে পৃথিবীর মধ্যে শ্রেষ্ঠ আন্তর্জাতিক বিমান বন্দর হবে আমাদের জাজিরায়। মুক্তিযোদ্ধাদের জাতীর শ্রেষ্ঠ সন্তান উল্লেখ করে বলেন, আমরা নেতা, মন্ত্রী, জজ, ব্যারিষ্টার হতে পারলেও কেউ মুক্তিযোদ্ধা হতে পারবো না। মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য বঙ্গবন্ধু কণ্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গৃহিত বিভিন্ন পদক্ষেপের কথা উল্লেখ করে বলেন, দুইশ টাকা থেকে আজ মুক্তিযোদ্ধারা ১০ হাজার টাকা পর্যন্ত ভাতা পায়। তাদের রাষ্ট্রিয় মর্যাদায় দাফন সহ চিকিৎসা ও রাষ্ট্রীয় বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে তাদের সম্মানিত করা হয়েছে। তাই মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি আহবান জানাচ্ছি আপনারা যারা এখনও অন্যদল করেন, তারা ভুলের পথ ছেড়ে আওয়ামী লীগের পতাকা তলে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে চলে আসেন।

সোমবার জেলা পরিষদ মিলনায়তনে জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান-১ মুক্তিযোদ্ধা মো. নাসির উদ্দিন পাইকের সভাপতিত্বে সংবর্ধনা সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক মো. মাহমুদুল হোসাইন খান, পুলিশ সুপার সাইফুল্লাহ আল মামুন পিপিএম, জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আব্দুল্লাহ আল মামুন, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অনল কুমার দে, মুক্তিযোদ্ধা সংসদের জেলা কমান্ডার এমএ সাত্তার খান। জেলা পরিষদ সদস্য কামরুজ্জামান উজ্জলের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মান্নান রাঢ়ী, প্যানের চেয়ারম্যান-২ আবুল মনসুর আজাদ শামীম, জেলা পরিষদ সদস্য মো. শাখাওয়াত হোসেন, মুক্তিযোদ্ধা মাহবুব আলম চোকদার, জেলা পরিষদের প্রশাসনিক কর্মকর্তা মো. নূর হোসেন।

এবার জেলা পরিষদের পক্ষ থেকে শরীয়তপুর জেলার মোট ৮০ জন মুক্তিযোদ্ধাকে ৫ হাজার করে টাকা অনুদান দেয়া হয়।

কুইকনিউজবিডি.কম/বিপুল/২৭শে মার্চ, ২০১৭ ইং/বিকাল ৫:১৫