১৮ই নভেম্বর, ২০১৮ ইং | ৪ঠা অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | রাত ৮:৪০

গাড়ি পোড়ানোর লিখিত অভিযোগের ১০ দিন অতিবাহিত হলেও মামলা নেয়নি ওসি

শেখ মো. রতন, মুন্সীগঞ্জ: মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখান উপজেলার লতব্দী ইউনিয়নের গোডাউন বাজারে প্রাইভেট কার পোড়ানোর লিখিত অভিযোগ থানায় দায়ের করার ১০ দিন অতিবাহিত হলেও মামলা নেয়নি সিরাজদিখান থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) ইয়ারদৌস হাসান।
তুচ্ছ ঘটনার জের ধরে রাতের আধারে আব্দুল মান্নান সিদ্দিকের প্রায় ১৬ লক্ষ টাকার টয়োটা করলা গাড়িটি পুড়িয়ে দেয় দুবৃত্তরা। এ ঘটনায় তিন জনকে আসামি করে আব্দুল মান্নন লিখিত ভাবে থানায় অভিযোগ করেন।
আব্দুল মান্নান সিদ্দিক জানান, কয়রাখোলা গ্রামের মৃত আব্দুর রশিদের ছেলে ইসলাম (২৫) সনিয়া নামক এক মেয়ের সাথে প্রেমের সম্পর্ক ছিল। উপজেলার চান্দেরচরে হাতে নাতে ধরে এলাকাবাসী তাদের বিয়ে করিয়ে দেয়। গ্রামে আসার পর থেকে মেয়েটির উপর অমানবিক নির্যাতন করে আসছিল ইসলামের পরিবার। আমি তার প্রতিবাদ করায় এবং আমার বড় ভাইয়ের ছেলে নজরুলের সাথে মেয়েটির ছবি তুলে দিলে ১ লক্ষ টাকা দেবে ইসলামের বড় ভাই আকবর তাই সামাজিক ভাবে মসজিদ কমিটির কাছে বিচার চাওয়ায় ৩ দিন পর গত ২১ ডিসেম্বর আমার গাড়িটি পুড়িয়ে দেয় তারা।
এ সময় একাধিকবার সিরাজদিখান থানার ওসি ইয়ারদৌস সাহেবের সাথে যোগাযোগ করা হলেও ১০দিন হলো এখানো মামলা নেয়নি ওসি।
মসজিদ কমিটির সদস্য আব্দুল জব্বার ও স্থানীরা জানান, মেয়েটি নির্যাতিত এ নিয়ে আদালতে মেয়েটি বাদী হযে মামলা করেছে। পরে ছবি তোলার ঘটনায় মসজিদ কমিটির কাছে বিচার চেয়েছিল মান্নান মাস্টার। তবে রাতের অন্ধকারে গাড়ি পুড়িয়েছে দুবৃত্তরা।
ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে সিরাজদিখান থানার ওসি ইয়াদৌস হাসান জানান, লিখিত অভিযোগ পেয়েছি, তদন্ত চলছে, তদন্ত শেষে মামলা হবে কিনা বিবেচনাধিন রয়েছে।

 

 

কুইকনিউজবিডি.কম/তপন/৩০শে ডিসেম্বর, ২০১৬ ইং/ বিকাল ৫:৪২