ব্রেকিং নিউজ
২১শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং | ৬ই আশ্বিন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | সকাল ১০:০৯

রাবির ক্রপ সায়েন্স বিভাগের সভাপতির পদত্যাগের দাবিতে ৭ দিনের আল্টিমেটাম

রাবি প্রতিনিধি: রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্রপ সায়েন্স এন্ড টেকনোলজি বিভাগের সভাপাতি প্রফেসর মোসলেহ্ উদ্দীনের বিরুদ্ধে অসদাচরণ ও গালমন্দ করার অভিযোগ তুলে তার পদত্যাগের দাবিতে কর্মবিরতির ঘোষণা দিয়েছে তার সহকর্মীরা। সোমবার দুপুরে ক্রপ সায়েন্স বিভাগে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে বিভাগের ১৩ শিক্ষকের মধ্যে দশ জন এ দাবি জানান। কর্মবিরতির পাশাপাশি তারা প্রফেসর মোসলেহ্ উদ্দিনের পদত্যাগের দাবিতে এক সপ্তাহের আল্টিমেটাম দিয়েছেন।
আন্দোলনকারী একাধিক শিক্ষক সাংবাদিকদের কাছে অভিযোগ করেন, কৃষিবিদ ও অকৃষিবিদ প্রসঙ্গ টেনে বিভাগের শিক্ষকবৃৃন্দের মধ্য দীর্ঘদিনের সুসম্পর্ক নষ্ট প্রফেসর ড. মো. মোসলেহ উদ্দীন। এছাড়াও বিভাগের অন্য শিক্ষকদের সাথে গালমন্দ করা সহ দুরব্যবহার, একাডেমিক কমিটির অনুমোদন ছাড়া শিক্ষার্থীদের একটি ব্যাচকে ব্যক্তিগত ট্যুরে নিয়ে গিয়ে বিভাগের অনেক টাকা অবৈধভাবে খরচ করা, এমনকি শিক্ষার্থীদের কাছে ‘ব্যাক্তি হিসাবে মোসলেহ উদ্দীন কেমন?’ এ বিষয়ে একটি এসাইনমেন্ট লিখতে দেন। এ এসাইনমেন্টের উপর শিক্ষার্থীদের তার প্রতি এককভাবে আনুগত্য যাচাই করে মূল্যয়ন করাসহ শিক্ষার্থীদের বিভিন্ন সুযোগ-সুবিধা দিয়ে থাকবেন বলে নিজেকে উপস্থাপন করেছেন। এমনকি নিজের চেম্বারে এসি লাগানো সহ হাইডেকোরেশন করা অথচ অন্য শিক্ষকদের জানালার পর্দা পর্যন্ত খুলে নেয়ার অভিযোগ করেন তারা। এছাড়াও বিভাগের উন্নয়নের নামে প্লানিং কমিটির কোন অনুমোদন ছাড়া আরো বেশ কিছু ক্ষেত্রে বিভাগের অর্থ অবৈধভাবে খরচ করেছেন বলেও অভিযোগ করেন।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে ক্রপ সায়েন্স বিভাগের প্রফেসর ড. নূরুল আলম বলেন, বিভাগের সভাপতির পদত্যাগের দাবিতে আমরা বুধবার সকাল ১০টা থেকে ১২টা পর্যন্ত এবং আগামী দুই জানুয়ারি বুধবার সকাল ৯টা থেকে ১২টা পর্যন্ত কর্মবিরতির ঘোষণা করছি। তবে বিভাগের সকল পরীক্ষা কর্মসূচীর বাইরে থাকবে।
জানতে চাইলে বিভাগের সভাপতি প্রফেসর ড. মোসলেহ উদ্দীন তার বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, উদ্দেশ্য প্রণোদিত ভাবে আমার বিরুদ্ধে এসব অভিযোগ করা হয়েছে। এগুলো ষড়যন্ত্র ছ্ড়াা আর কিছুই নয়।

 

 

কুইকনিউজবিডি.কম/ মুরাদ /২৬শে ডিসেম্বর,২০১৬ ইং/সন্ধ্যা ৭:১৮