১৮ই নভেম্বর, ২০১৮ ইং | ৪ঠা অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | সকাল ১০:২৫

১৪ হাত উচ্চতার কালী প্রতিমা রহস্যজনক আগুনে পুড়ে গেল

ডেস্ক নিউজ : ফরিদপুরে রহস্যজনক আগুনে পুড়ে গেছে ১৪ হাত উচ্চতার কালী প্রতিমা। গত শনিবার রাত ১০টার দিকে ফরিদপুর সদর উপজেলার মাচ্চর ইউনিয়নের খলিলপুরে রাধা বিনোদ সেবাশ্রমসংলগ্ন কালীমন্দিরে এ ঘটনা ঘটে।
ওই মন্দিরের পুরোহিত রাজকুমার আগরওয়ালা বলেন, তিনি অন্যান্য দিনের মতো পূজা-অর্চনা শেষ করে শনিবার সন্ধ্যা সাড়ে সাতটার দিকে মন্দির থেকে আনুমানিক ৫০০ গজ দূরে অবস্থিত মন্দির কমিটির সভাপতির বাড়ি যান। তিনি জানান, আগে তিনি মন্দিরেই রাত কাটাতেন। কিন্তু সম্প্রতি তিনি নিরাপত্তার কথা বিবেচনা করে সভাপতির বাড়িতেই থাকছেন।

রাত ১০টার দিকে এলাকাবাসীর কাছ থেকে খবর পেয়ে মন্দির প্রাঙ্গণে এসে দেখেন ১৪ হাত উচ্চতার কালী প্রতিমাটি জ্বলছে। পরে এলাকাবাসী ও দমকল বাহিনীর সহায়তায় আগুন নেভানো হয়।
মন্দির ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি পরিতোষ কুমার দাস বলেন, আগুনে শুধু প্রতিমাটিই পুড়ে গেছে। মন্দিরের বিদ্যুৎ সংযোগ অক্ষুণ্ন রয়েছে, এমনকি মন্দিরের পর্দার কাপড় পর্যন্ত পোড়েনি। তিনি বলেন, এ থেকে ধারণা যায় বিষয়টি পরিকল্পিত ও নাশকতামূলক।
গতকাল রোববার দুপুরে সরেজমিনে দেখা গেছে, ৩০ ফুট দৈর্ঘ্য, ২০ ফুট প্রস্থ ও ৬৪ ফুট উচ্চতাবিশিষ্ট ওই কালীমন্দিরের তিন পাশে দেয়াল এবং সামনের পাশ গ্রিল দিয়ে ঘেরা। মন্দিরের ভেতরে পুড়ে যাওয়া প্রতিমার বিভিন্ন নির্মাণ উপকরণ ছড়িয়ে রয়েছে।
এলাকাবাসী সূত্র জানায়, ২০ বছর ধরে ওই জায়গায় ১৪ হাত উঁচু কালী প্রতিমার পূজা হয়ে আসছে। প্রতিবছর কালীপূজাকে সামনে রেখে নতুন প্রতিমা নির্মাণ করা হয়। পূজার পর এক বছর প্রতিমাটি ওই মন্দিরেই রেখে প্রতিদিন পূজা দেওয়া হয়। ১৩ বছর আগে বর্তমান এই পাকা মন্দিরটি নির্মাণ করা হয়।
ফরিদপুর দমকল বাহিনীর জ্যেষ্ঠ স্টেশন কর্মকর্তা মো. সাইফুরজামান বলেন, দেড় ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নেভানো সম্ভব হয়। তবে কীভাবে আগুন লেগেছে তা তাৎক্ষণিকভাবে শনাক্ত করা যায়নি।

 

 

কুইকনিউজবিডি.কম/আরিফ/১০ ই অক্টোবর, ২০১৬ ইং/সকাল ৯ঃ০৫