২৯শে অক্টোবর, ২০২০ ইং | ১৩ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | রাত ১০:১৪

বানেশ্বরে হোটেল সুরমা থেকে চার যৌনকর্মী আটক।

মোঃ আমজাদ হোসেন,রাজশাহী জেলা প্রতিনিধি : রাজশাহী পুঠিয়া উপজেলার  বানেশ্বরে হোটেল সুরমা আবাসিক থেকে চার যৌনকর্মীকে আটক করেছে পুঠিয়া থানা পুলিশ। মঙ্গলবার বিকাল ৪টায় সময় পুঠিয়া উপজেলার বানেশ্বরে সকল আবাসিক  হোটেল হোটেল পুঠিয়া থানা পুলিশ অভিযান পরিচালনা করে এসময় হোটেল সুরমা আবাসিক থেকে চার যৌনকর্মীকে আটক করে পুঠিয়া থানা পুলিশ।আটককৃতরা হলো, নাটোর সদর এলাকার আক্তার আলীর মেয়ে সুমি খাতুন (২৫), কুতুবদিয়া কক্সবাজার এলাকার মৃত সৈয়দ আহম্মেদের মেয়ে তসলিমা আক্তার (২৬), নওগাঁ জেলার সাপাহার এলাকার কটুর মেয়ে জহিরুন খাতুন (২৭) ও বগুড়া জেলার ধনুট চকবাড়ি এলাকার জেন হোসেনের মেয়ে জেসমিন খাতুন (২৫)।

পুঠিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ রেজাউল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আমি ও আমার ফোর্স  পুঠিয়া উপজেলার বানেশ্বর ট্রাফিক মোড় সংলগ্ন মনি মার্কেটের দোতালায় হোটেল সুরমায় অভিযান পরিচালনা করি। এসময় আমাদের উপস্থিতি  পেয়ে হোটেলের ম্যানেজার ও কর্মচারীরা পালিয়ে যায়। পরে হোটেলের ভিতরে থাকা চার যৌনকর্মীকে আটক করা হয়।তাদের বিরুদ্ধে পুঠিয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। আদালতের মাধ্যমে তাদেরকে জেলা হাজতে পাঠানো হবে।

এলাকাবাসীর অভিযোগ, বানেশ্বর হাটকে কেন্দ্র করে আবাসিক হোটেল ব্যবসা গড়ে উঠে। আবাসিক হোটেল ব্যবসার আড়ালে হোটেল গুলোতে অবৈধ দেহব্যবসাসহ উঠতি বয়সে ছেলেদের মাদক সেবন আড্ডা চলে। পুঠিয়া উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশ প্রসাশন মাঝে মধ্যে অভিযান পরিচালনা করলে কিছুদিন তাদের এ অবৈধ ব্যবসা বন্ধ থাকে। পরে আবার তাদের এ ব্যবসা শুরু হয়। এ কারণে যে সব হোটেলে এধরনের অবৈধ ব্যবসা হয় সেসব হোটেলগুলো বন্ধের দাবি জানিয়েছেন এলাকার সচেতণ মহল।

কিউএনবি/অনিমা/২৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং/রাত ৮:৫৫

↓↓↓ফেসবুক শেয়ার করুন