১৫ই জুলাই, ২০২০ ইং | ৩১শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | ভোর ৫:০৪

মহানবীকে নিয়ে বিতর্কিত বক্তব্য দেয়ায় বয়াতি গ্রেপ্তার, তিনদিনের রিমান্ড

 

শামসুল ইসলাম সহিদ,মির্জাপুর (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি : টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে মহানবী (স.) মসজিদের ঈমাম ও ইসলাম সম্পর্কে ভুল ব্যাখ্যা দিয়ে বক্তব্য দেয়ার অভিযোগে বাউলশিল্পী শরিয়ত বয়াতী (৩৫) কে গ্রেপ্তার করেছে থানা পুলিশ। শনিবার সকালে ময়মনসিংহ জেলার ভালুকা উপজেলার বাশিল এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। বয়াতী শরিয়ত সরকার মির্জাপুর উপজেলার জামুর্কী ইউনিয়নের আগধল্যা গ্রামের পবন মিয়ার ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, বয়াতী শরিয়ত সরকার গত ২৪ ডিসেম্বর ঢাকা জেলার ধামরাই উপজেলার রৌহাট্রেক পালা গানের অনুষ্ঠানে গান পরিবেশন করেন। এসময় তিনি বলেন, গান বাজনা হারাম কোরআনে কোথাও লেখা নেই। এছাড়া দাউদ নবী কোন নবী না, তিনি বয়াতী ছিলেন। রাসুল (স:) গান না শুনে ঘুমাইতেন না। তিনি আরো বলেণ, নবীজি আবু মুসা আশয়ারী (রা:) কে ২৩ রকমের গানের বাদ্যযন্ত্র হাদিয়া প্রদান করিয়াছেন। ওইসব বাদ্যযন্ত্র দাউদ নবীজির ছিল। এছাড়া মসজিদের ঈমাম ও ইসলাম ধর্ম নিয়ে ভূল ব্যাখা দিয়ে বক্তব্য রাখেন।

তার এই বক্তব্য ইউটিউবে প্রচার হলে প্রথমে তার এলাকা মির্জাপুর উপজেলার আগধল্যা গ্রামের মুসুল্লিরা বিক্ষোভে ফেটে পড়ে। মুসুল্লিরা ওই বাউলের বিরোদ্ধে বিক্ষোভ মিসিল ও সমাবেশের মাধ্যমে তার উপযুক্ত বিচার দাবি করেন। এই ঘটনায় আগধল্যা গ্রামের মাওলানা ফরিদুল ইসলাম বাদী হয়ে মির্জাপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। ওই মামলার ভিত্তিতে মির্জাপুর থানা পুলিশ শনিবার তাকে গ্রেফতার করেন।

মির্জাপুর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা মো. মিজানুর রহমান শনিবার সকালে শরিয়ত বয়াতিকে গ্রেপ্তারের পর বিকেলে ১০ দিনের ডিমান্ড আবেদন করে টাঙ্গাইলের জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির করেন। আদালতের সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. আসলাম তার তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

মির্জাপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সায়েদুর রহমান বলেন, শরিয়ত বয়াতীর বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা হয়েছে। আদালত তাকে তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন বলে তিনি জানান।

কিউএনবি/রেশমা/১১ই জানুয়ারি, ২০২০ ইং/সন্ধ্যা ৬:৪০

↓↓↓ফেসবুক শেয়ার করুন