১০ই ডিসেম্বর, ২০১৯ ইং | ২৬শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | ভোর ৫:৫৫

সরকারি হাইস্কুলে ভর্তির আবেদন আজ শুরু

 

ডেস্ক নিউজ : রাজধানীর ৩৯টি সরকারি হাইস্কুলে ভর্তির আবেদন কার্যক্রম শুরু হচ্ছে আজ। অনলাইনে ১৪ ডিসেম্বর মধ্যরাত পর্যন্ত আবেদন করা যাবে। ঢাকার বাইরে আরও প্রায় সাড়ে ৩শ’ সরকারি হাইস্কুলে পাশাপাশি ভর্তির আবেদন করা যাবে। এবারও দ্বিতীয় থেকে অষ্টম শ্রেণিতে ভর্তি করা হবে সরাসরি লিখিত পরীক্ষার মাধ্যমে। তবে প্রথমবারের মতো প্রশ্নপত্র পদ্ধতিতে পরিবর্তন আসছে। সৃজনশীল বা রচনামূলক প্রশ্নের পরিবর্তে অল্প কথায় বা এক কথায় উত্তর দেয়ার মতো প্রশ্ন থাকছে।

মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরের (মাউশি) পরিচালক অধ্যাপক ড. আবদুল মান্নান যুগান্তরকে জানান, শিক্ষার্থী মূল্যায়নে অধিকরতর স্বচ্ছতা নিশ্চিতে প্রশ্নপদ্ধতিতে এই পরিবর্তন আনার পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। যাতে উত্তর সঠিক হলে শতভাগ নম্বর দেয়া সম্ভব হয়, পরীক্ষকভেদে কমবেশি দেয়ার সুযোগ নেই।  জানা গেছে, রাজধানীর ৩৯টি হাইস্কুলে এবং তিনটি স্কুলের (তিনটি) ফিডার শাখার বিভিন্ন শ্রেণিতে শিক্ষার্থী ভর্তি করা হবে। ভর্তির সুবিধার্থে ঢাকার স্কুলগুলোকে এবারও তিন ভাগে ভাগ করা হয়েছে। মোট ৪২টি হাইস্কুল সমানভাবে ‘ক’, ‘খ’ ও ‘গ’ গ্রুপে ১৪টি করে ভাগ করা হয়েছে।

প্রথম শ্রেণির ভর্তিতে শিক্ষার্থীর বয়স জানুয়ারিতে ছয় বছরের বেশি হতে হবে। স্কুলগুলোতে আবেদন একসঙ্গে নেয়া হলেও পরীক্ষা হবে তিন ভাগে। এর মধ্যে ‘ক’ গ্রুপের স্কুলের পরীক্ষা ১৮ ডিসেম্বর, ‘খ’ গ্রুপের ১৯ এবং ‘গ’ গ্রুপের পরীক্ষা ২০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। এবারও ভর্তিতে প্রথম ও নবম শ্রেণিতে ভর্তি পরীক্ষা হবে না।  প্রথম শ্রেণিতে লটারি আর নবম শ্রেণিতে জেএসসি পরীক্ষার ফলাফলের ভিত্তিতে ভর্তি করা হবে। প্রথম শ্রেণিতে ভর্তির লটারি করা হবে ২৪ ডিসেম্বর। ঢাকার বাইরের স্কুলগুলোতে উল্লিখিত সময় অনুযায়ী আবেদন নেয়া হলেও পরীক্ষা স্থানীয়ভাবে নির্ধারিত তারিখে নেয়া যাবে। এ ক্ষেত্রে জেলায় ডিসি এবং উপজেলায় ইউএনও’র নেতৃত্বে প্রস্তাবিত কমিটির বৈঠকে সিদ্ধান্ত নেয়া যাবে।

প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী, দ্বিতীয়-অষ্টম শ্রেণির শূন্য আসনে লিখিত পরীক্ষার মাধ্যমে মেধাক্রম অনুসারে ভর্তির জন্য শিক্ষার্থী বাছাই প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে হবে। দ্বিতীয়-তৃতীয় শ্রেণি পর্যন্ত পূর্ণমান-৫০, এর মধ্যে বাংলা-১৫, ইংরেজি-১৫, গণিত-২০ নম্বর। ভর্তি পরীক্ষার সময় ১ ঘণ্টা। চতুর্থ-অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত পূর্ণমান-১০০। এর মধ্যে বাংলা-৩০, ইংরেজি-৩০, গণিত-৪০ নম্বর থাকবে। ভর্তি পরীক্ষার সময় ২ ঘণ্টা। ভর্তি ফরমের দাম এবারও ১৭০ টাকাই থাকছে। আবেদন কার্যক্রম পরিচালিত হবে টেলিটকের মাধ্যমে।  এজন্য টেলিটকের gsa.teletalk.com.bd শীর্ষক ওয়েবসাইটে যেতে হবে। ভর্তি সংক্রান্ত সব তথ্য মাউশি (www.dshe.gov.bd) এবং টেলিটকের ওপরে উল্লিখিত ভর্তির ওয়েবসাইটে পাওয়া যাবে।

 

 

কিউএনবি/আয়শা/২রা ডিসেম্বর, ২০১৯ ইং /রাত ৯:০২

↓↓↓ফেসবুক শেয়ার করুন