ব্রেকিং নিউজ
১২ই ডিসেম্বর, ২০১৯ ইং | ২৮শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | রাত ১:৪৫

প্রিয়াংকা চোপড়াকে ‘ভণ্ড’ বললেন পাকিস্তানি নারী

 

বিনোদন ডেস্ক : ভারত শাসিত কাশ্মীরের স্বায়ত্বশাসিত মর্যাদা বাতিলের কারণে ভারত পাকিস্তানের সম্পর্ক তলানিতে গিয়ে ঠেকেছে। আর এ তীব্র উত্তেজনার মধ্যে ভারতকে যুদ্ধে উৎসাহ দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে বলিউড তারকা প্রিয়াংকা চোপড়ার বিরুদ্ধে। লস এঞ্জেলেসে এক পাকিস্তানি-আমেরিকান নারী প্রিয়াংকা চোপড়াকে ‘ভণ্ড’ বলে অভিহিত করেন। বিবিসি বাংলার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা যায়। 

লস এঞ্জেলেসে বিউটিকন নামের একটি অনুষ্ঠানে প্রিয়াংকা চোপড়া বক্তৃতা দিচ্ছিলেন। সেখানে আয়েশা মালিক নামে এক পাকিস্তানি-আমেরিকান নারীর প্রশ্নের মুখে পড়তে হয় তাকে। তিনি বলেন, ‘আপনি যখন মানবতার কথা বলেন, তখন সেটা শুনতে বেশ খারাপ লাগে, কারণ আপনার প্রতিবেশি হিসেবে, একজন পাকিস্তানি হিসেবে আমি জানি, আপনি একজন ভণ্ড।’ গত ফেব্রুয়ারিতে প্রিয়াংকা চোপড়ার টুইটের উদ্ধৃতি দিয়ে তিনি বলেন, ‘আপনি ইউনিসেফের শান্তির দূত। আর আপনি কীনা পাকিস্তানের বিরুদ্ধে পরমাণু যুদ্ধে উৎসাহ দিচ্ছেন। এই যুদ্ধে তো কেউ জয়ী হবে না।’ এ কথা বলার পর আয়েশা মালিকের হাত থেকে মাইক কেড়ে নেয়া হয়।

এ বছরের শুরুতে এক হামলায় ৪০ জন ভারতীয় সেনা নিহত হযন, তখন ভারত আর পাকিস্তানের সম্পর্কের মারাত্মক অবনতি ঘটে। পাকিস্তান ভিত্তিক একটি সন্ত্রাসী গোষ্ঠী এই হামলা চালায় বলে দাবি করা হয়। এর প্রতিশোধ নিতে ভারত যখন পাকিস্তানের ভেতর হামলা চালায় তখন প্রিয়াংকা চোপড়া ‘জয়-হিন্দ#ইন্ডিয়ান-আর্মড-ফোর্সেস’ লিখে টুইট করে তার প্রশংসা করেছিলেন।আয়েশা মালিকের অভিযোগের উত্তরে প্রিয়াংকা চোপড়া বলেন, পাকিস্তানে আমার অনেক বন্ধু আছে। আমি ভারতের লোক। আমি যুদ্ধের ভক্ত নই, কিন্তু আমি দেশপ্রেমিক। কাজেই আমার কথা শুনে যদি আমাকে ভালোবাসে এমন কারো অনুভূতিতে আঘাত লেগে থাকে, আমি দুঃখিত। আমি মনে করি আমাদের সবাইকে আসলে এক ধরনের মাঝামাঝি পথে হাঁটতে হবে।

 

 

কিউএনবি/আয়শা/১৩ই আগস্ট, ২০১৯ ইং/ রাত ৮:৩৪

↓↓↓ফেসবুক শেয়ার করুন