১৭ই জুন, ২০১৯ ইং | ৩রা আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | ভোর ৫:৩৩

পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে ওঠার লড়াইয়ে ভারত-নিউজিল্যান্ড

 

স্পোর্টস ডেস্ক : আগামীকাল বৃহস্পতিবার নটিংহ্যামে মুখোমুখি হচ্ছে এবারের বিশ্বকাপের এখন পর্যন্ত অপরাজিত দুই দল ভারত ও নিউজিল্যান্ড। তিন ম্যাচে তিনটিতেই জয়ী হয়ে পূর্ণ ৬ পয়েন্ট নিয়ে নিউজিল্যান্ড টেবিলের শীর্ষে অবস্থান করছে। অন্যদিকে দুই ম্যাচে শতভাগ জয় নিয়ে ভারতের সংগ্রহে আছে ৪ পয়েন্ট। কালকের ম্যাচের মাধ্যমে টেবিলের শীর্ষে ওঠার লড়াইয়ে দুই দলের সামনেই থাকছে সমান সুযোগ।

বড় আসরে ভারতের বিপক্ষে নিউজিল্যান্ড জয়ের দিক দিয়ে কিছুটা এগিয়ে। এ পর্যন্ত বিশ্বকাপের দুই দলের সাত মোকাবেলায় কিউইরা জিতেছে চারটিতে, ভারত বাকি তিনটিতে। কেন উইলিয়ামসনের দল জয়ের ধারা ধরে রেখে চতুর্থ ম্যাচেও এগিয়ে যেতে বদ্ধপরিকর। ধাওয়ান ও রোহিত মিলে ভারতের অন্যতম সফল উদ্বোধনী জুটির তকমা ইতোমধ্যেই অর্জন করে ফেলেছেন। আর সে কারণেই বিশ্বকাপের মতো বড় আসরে এসে ধাওয়ানের অনুপস্থিতিতে ভারত তাদের প্ল্যান-বি’তে সফল হয় কিনা সেটাই এখন দেখার বিষয়। উদ্বোধনী জুটিতে রাহুলের অন্তর্ভূক্তি নিঃসন্দেহে বিজয় শঙ্কর ও দিনেশ কার্তিকের যেকোনো একজনকে ৪ নম্বরে উঠিয়ে নিয়ে আসবে। রাহুলের জন্য এই পরিস্থিতিতে ইনিংস সূচনা করাটা কিছুটা চাপ মনে হলেও হঠাৎ পাওয়া সুযোগটা পুরোপুরি কাজে লাগাতে প্রস্তুত এই প্রতিভাবান ব্যাটসম্যান। বিশেষ করে নতুন বলে ট্রেন্ট বোল্টকে মোকাবেলা করাটা খুব একটা সহজ কাজ হবে না। যদিও ২২ গজের অপর প্রান্ত থেকে রোহিত শর্মার পূর্ন সমর্থন তো থাকবেই। কন্ডিশন বিবেচনায় রোহিত শর্মা যেভাবে নিজের পারফরমেন্সকে রূপান্তরিত করতে পারেন তা অনেকের কাছেই অনুকরণীয় হতে পারে। পাওয়ারপ্লেতে ভারত বেশ কিছুদিন ধরেই স্ট্রোক-প্লেয়ার রোহিতের ওপর নির্ভরশীল। প্রথম দুই ম্যাচে সেঞ্চুরি ও হাফ সেঞ্চুরি তুলে নেয়া ভারতের সহ-অধিনায়ক আগামীকালও নিজেকে প্রমানে মুখিয়ে আছেন। যদিও বোল্টের চ্যালেঞ্জ তার জন্যও অপেক্ষা করছে।

ওভালে অনুশীলন ম্যাচে বোল্ট ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের স্বস্তি দেননি। তারপর থেকে প্রায় দুই সপ্তাহ কেটে গেছে, আর বোল্ট এখন পর্যন্ত এই টুর্নামেন্টে খুব একটা সুইং দেখাতে পারেননি। যদিও তার বোলিং স্টাইল কখনই কন্ডিশনের উপর খুব একটা নির্ভর করেনা। নিউজিল্যান্ডে ‘১৫০ কিমি গতিমানব’ লোকি ফার্গুসনও কালকের ম্যাচে নিজেকে প্রমানের জন্য মুখিয়ে আছেন। বিশেষ করে ট্রেন্ট ব্রীজের ট্র্যাক বাউন্স সহায়ক হওয়ায় তা পেসারদের বাড়তি সুবিধা দেবে। ফার্গুসন বলেন, ‘আমরা ভাল খেলতে চাই। এটা বিশ্বকাপ। ভারতের বিপক্ষে ম্যাচে আমাদের সামনে সুযোগ এসেছে দুই পয়েন্ট অর্জন করে আরো এগিয়ে যাবার। যদিও বৃষ্টি বাঁধা হয়ে দাঁড়াতে পারে। তবে এর উপর কারো হাতে নেই।’

এ পর্যন্ত ভারতের বিপক্ষে মাত্র তিনটি ওয়ানডে খেলেছেন ফার্গুসন। তিনটিই এ বছরের জানুয়ারিতে। ভারত তিনটি ম্যাচেই সহজ জয় তুলে নিয়েছিল। ঐ সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে ফার্গুসন ৮১ রানে ২ উইকেট পেয়েছিলেন। কিন্তু এখন তার সামনে সুযোগ এসেছে ঐ ম্যাচগুলোর শিক্ষাকে কাজে লাগানোর। ফার্গুসনের মতে প্রথমেই উইকেট তুলে নিতে পারলে সেটা ভারতকে পরাজিত করার ক্ষেত্রে কাজে আসবে। এতে তারা চাপে পড়বে ও ডটের সংখ্যা বাড়বে। অবশ্যই এবারের আসরে ভারত অন্যতম ফেবারিট। কিন্তু ইংল্যান্ডের মাটিতে তাদের বিপক্ষে ভাল খেলার সুযোগটা আমরাও হারাতে চাই না।

স্কোয়াড :

ভারত : বিরাট কোহলি (অধিনায়াক), রোহিত শর্মা, বিজয় শঙ্কর, এমএস ধোনী (উইকেটরক্ষক), কেদার যাদব, হার্ডিক পান্ডিয়া, রবিন্দ্র জাদেজা, জাসপ্রিত বুমলাহ, ভুবনেশ্বর কুমার, লোকেশ রাহুল, দিনেশ কার্তিক, কুলদ্বীপ যাদব, রিশভ পন্থ, যুজবেন্দ্র চাহাল।

নিউজিল্যান্ড : কেন উইলিয়ামসন (অধিনায়), কলিন মুনরো, মার্টিন গাপটিল, টম বান্ডেল (উইকেটরক্ষক), রস টেইল, হেনরি নিকোলস, জেমস নিশাম, মিচেল সান্টনার, লোকি ফার্গুসন, ট্রেন্ট বোল্ট, টিম সাউদি, ম্যাট হেনরি, কোলিন ডি গ্র্যান্ডহোম, টম ল্যাথ্যাম, ইশ সোদি।

 

 

কিউএনবি/আয়শা/১২ই জুন, ২০১৯ ইং/সন্ধ্যা ৬:১৯

Please follow and like us:
0
Social media & sharing icons powered by UltimatelySocial