১২ই ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং | ২৮শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | সকাল ৬:৫৬

সূচি পরিবর্তনে হতাশ মাশরাফি

 

স্পোর্টস ডেস্ক : চলমান এশিয়া কাপে অন্যদের তুলনায় বেশিই সুবিধা নিচ্ছিল ভারত। টিম হোটেল থেকে সূচি পর্যন্ত কিছুতেই বাকি পাঁচ দলের তুলনায় বেশি সুবিধা ভোগ করছিল বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা। অন্য দলগুলোকে একবার আবু ধাবি ও একবার দুবাইয়ে যেতে হলেও। গ্রুপ পর্বে ভারতের সব ম্যাচ দুবাইতেই ছিল। এশিয়া কাপের মূল সূচিতে ‘এ’ গ্রুপের সেরা দলটির সুযোগ ছিল দুবাইতেই সব ম্যাচ খেলার। কিন্তু ভারতীয় ক্রিকেট নিয়ন্ত্রণ বোর্ডের  (বিসিসিআই) আপত্তি থাকার কারণে রোহিত শর্মার দলের সব ম্যাচ দিয়ে দেয়া হয় দুবাইতে।

অর্থাৎ গ্রুপ ‘এ’ থেকে ভারত ব্যতীত অন্য দল তথা পাকিস্তান চ্যাম্পিয়ন হলেও তাদের খেলতে হবে আবুধাবি-দুবাই ভ্রমণ করেই। আর এতে চটে ছিলেন সরফরাজ আহমেদ। পাকিস্তান অধিনায়ক বলেছিলেন, যদি ৯০ মিনিটের যাত্রার পর একদিনের মধ্যে কোনও ম্যাচ খেলতে হয়, সেটা চ্যালেঞ্জিং। আমার মনে হয়, সবার জন্য একই নিয়ম হওয়া উচিত।সেটা ভারত হোক বা পাকিস্তান।

জানি না, এর পিছনে এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিলের (এসিসি) কী ভূমিকা আছে। আর এই ঘটনা নিয়ে এবার মুখ খুললেন বাংলাদেশ দলপতি মাশরাফি বিন মুর্তজাও।নতুন সূচিতে আফগানিস্তানকে গ্রুপ ‘বি’র চ্যাম্পিয়ন ও বাংলাদেশকে রানার্স-আপ করা হয়েছে। সে অনুযায়ী বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ ভারত আর আফগানদের বিপক্ষে খেলবে পাকিস্তান। এর মানে হচ্ছে আগামীকাল আফগানিস্তানের বিপক্ষে আবুধাবিতে খেলার পরই বাংলাদেশ দলকে চলে যেতে হবে দুবাইতে। আর সেখানেই ভারতের সঙ্গে শুক্রবার সুপার ফোরের ম্যাচটি খেলতে হচ্ছে। 
  
সূচি পরিবর্তন হওয়ার পর হতাশ হয়েছে মাশরাফি। তা নিয়েই অভিযোগ করলেন টাইগার অধিনায়ক। আজ বুধবার তিনি বলেন, গ্রুপ ‘বি’র শেষ ম্যাচ হবার আগেই আমাদেরকে গ্রুপ রানার্স-আপ বানিয়ে দেয়া হয়েছে। আমরা এখানে পরিকল্পনা নিয়ে এসেছিলাম। আমরা শ্রীলঙ্কার ম্যাচে জয় পাবার পর আমাদের আশা ছিল গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে গ্রুপ ‘এ’র রানার্স-আপদের বিপক্ষে খেলব। তবে শেষ ম্যাচে জয় পাই আর না পাই আজ সকালে শুনলাম  গ্রুপ ‘বি’ থেকে আমাদের আগে থেকেই দ্বিতীয় ঘোষণা করা হয়েছে। সত্যিই এটি হতাশাজনক।
 
এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিলকে উদ্দেশ্য করে ম্যাশ বলেন, এটি একটি আন্তর্জাতিক ম্যাচ। আর আমরা নিজের দেশকে প্রতিনিধিত্ব করছি। আর তাই আমাদের কাছে এটি অনেক গুরুত্বপূর্ণ। তবে গ্রুপ পর্যায়ের ম্যাচে অথবা সুপার ফোরের ম্যাচে কিছু নিয়মাবলী রয়েছে। আর আমরা সেসব নিয়ম থেকে দূরে সরে যাচ্ছি।

 

 

 

কিউএনবি/সাজু/১৯শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং/রাত ৮:৪৯