২৭শে জুন, ২০১৯ ইং | ১৩ই আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | রাত ২:১৯

নিয়মিত চা পানে বুদ্ধি ও একাগ্রতা বাড়ে

নিউজ ডেস্ক- জনপ্রিয় পানীয়র কোন তালিকা তৈরি হলে, তার সর্বাগ্রে থাকবে চায়ের নাম। কারও পছন্দ চিনি ছাড়া লাল চা, কারও আবার বেশি দুধ ও চিনি সহযোগে কড়া চা। চায়ের কতই না রূপভেদ। কিন্তু ধর্ম-বর্ণ ও লিঙ্গ নির্বিশেষে মানুষ একটা ব্যাপারে একমত হবেনই যে, চা ছাড়া দিন যে কাটে না।

সম্প্রতি চায়ের গুণাগুণ সম্পর্কে এক নতুন সমীক্ষার ফলাফল প্রকাশ পেয়েছে। যেখানে বলা হচ্ছে, যারা নিয়মিত চা পান করেন, তাদের বুদ্ধি, একাগ্রতা ও সৃজনশীলতা যারা চা পান করেন না, তাদের চেয়ে বেশি হয়। গবেষকরা বলছেন, চায়ের মধ্যে ক্যাফিন ও থিয়ানিন থাকে। এই উপাদানগুলি আমাদের সদা সতর্ক থাকতে সাহায্য করে। একাগ্রতা বাড়ায়। মানুষের মস্তিষ্কে ‘ক্রিয়েটিভ জুস’-এর প্রবাহ বাড়িয়ে দেয় এক কাপ চা।

এই তত্ত্ব হাতেকলমে প্রমাণ করতে ২৩ বছর বয়সী ৫০ জন যুবককে দু’টি দলে ভাগ করা হয়। তাদের মধ্যে একদলকে শুধুমাত্র পানি দেওয়া হয়, ওপর দলটিকে পানি ছাড়াও নিয়মিত লিকার চা পান করতে দেওয়া হয়। দু’টি দলকেই নানা কাজের ভার দেওয়া হয়। তাদের কিছু অঙ্ক কষতে দেওয়া হয়, ইতিহাসের কয়েকটি প্রশ্ন জানতে চাওয়া হয়। দেখা যায়, নিয়মিত চা পান করেছেন যারা, তাদের স্কোর ৬.৫৪। আর যারা চা পান করেননি, তাঁদের গড় স্কোর ৬.০৩।

তাহলে বুঝতেই পারছেন, আপনার বারবার চা চাওয়ার (বদ) অভ্যাসে গিন্নি বিরক্ত হলেও, এই প্রবণতা কিন্তু মোটেও ক্ষতিকারক নয়। তবে ঘনঘন পান করার অভ্যাস থাকলে দুধ-চিনি ছাড়া লিকার চা বা গ্রিন টি পান করুন। এতে সুস্থও থাকবেন বেশিদিন, আর আপনার বুদ্ধি-একাগ্রতাও বাড়বে।

কিউএনবি/নিল/১০ই সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং /১৬ঃ১৫

Please follow and like us:
0
Social media & sharing icons powered by UltimatelySocial