২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং | ৯ই আশ্বিন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | রাত ১২:০৮

শরীয়তপুরে এক মিনিটে চলচিত্র নির্মাণ কর্মশালা সমাপ্ত

 

খোরশেদ আলম বাবুল শরীয়তপুর প্রতিনিধি : শরীয়তপুরে চার দিনব্যাপী এক মিনিটে চলচিত্র নির্মাণ কর্মশালার সমাপ্ত হয়েছে আজ শুক্রবার। গত ৪ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার ১২ থেকে ২০ বছর বয়সী ২০ জন প্রশিক্ষনার্থী নিয়ে শরীয়তপুর সার্কিট হাউজে এ কর্মশালা শুরু হয়। ইউনিসেফ এক মিনিটে চলচিত্র নির্মাণ প্রকল্প হাতে নিয়েছে। বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির সহযোগিতায় বাংলাদেশ শর্টফ্লিম ফোরাম ৬৪ জেলায় এ প্রশিক্ষণের আয়োজন করেছে। প্রশিক্ষণ শেষে প্রশিক্ষণার্থীদের সনদ প্রদান করা হয়েছে। 

সনদ প্রদান অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন শরীয়তপুর জেলা প্রশাসনের এনডিসি মো. বেলাল হোসাইন। বক্তব্য রাখেন শরীয়তপুর শিল্পকলা একাডেমির সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর মৃধা, চলচিত্র পরিচালক সরোয়ার জাহান খান, প্রধান প্রশিক্ষক এনটিভি’র সিনিয়র ভিডিও এডিটর আকশাবুল হক নান্নু, সহকারী প্রশিক্ষক প্রোগ্রাম প্রডিউসর ও নাট্য নির্মাতা আরিফুর রহমান নিয়াজ। এ সময় উপস্থিত ছিলেন শরীয়তপুর সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট মুরাদ মুন্সী, এডভোকেট অমিত ঘটক চৌধুরী, সুজাতা রাণী দে প্রমূখ।

এনডিসি মো. বেলাল হোসাইন বলেন, পড়াশুনা করে চাকরি করা একটা লাইন আর কবিতা লেখা, চলচিত্র নির্মাণ, ছবি তোলা, সাংবাদিকতা করা আলাদা লাইন। অভিনয়, ছবিতোলা, চলচিত্র নির্মাণের ইচ্ছা অন্তরের অন্তস্থল থেকে আসতে হবে। তাহলেই আপনি একটা ভালো কবিতা লিখতে, ভালো চলচিত্র নির্মাণ, অভিনয় করতে ও ভালো ছবি তুলতে পারবেন। এর জন্য সৃজনশীলতার প্রয়োজন। দর্শক নন্দিত ও মানুষের হৃদয় আকৃষ্ট করার বিষয়ে লক্ষ রেখে চলচিত্র নির্মাণ করতে হবে। হুমায়ন আহমেদের কোথাও কেউ নেই নাটকের বাকের ভাই একটি চরিত্র। এ চরিত্র এমন ভাবে উপস্থাপন করা হয়েছি যা দর্শক নন্দিত হয়েছিল। মানুষের হৃদয় এতটাই আকৃষ্ট করেছিল যে, নাটকের দর্শক ঢাকা শহরের রাস্তায় নেমে মিছিল করেছে। বাকের ভাইর ফাঁসি হলে জ্বলবে আগুন ঘরে ঘরে।

 

 

কিউএনবি/অায়শা/৭ই সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং/সন্ধ্যা ৬:৫৯