ব্রেকিং নিউজ
২০শে জুন, ২০১৯ ইং | ৬ই আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | রাত ১:০১

শৌলপাড়ায় রাতের আধারে গাছ কেঁটে ও ঘর ভেঙ্গেনেয়ার অভিযোগ

 

খোরশেদ আলম বাবুল,শরীয়তপুর প্রতিনিধি : শরীয়তপুর সদর উপজেলার শৌলপাড়া ইউনিয়নের চর-গয়ঘর গ্রামে রাতের আধারে গাছ কেঁটে ও ঘর ভেঙ্গে নেয়ার অভিযোগ উঠেছে একই বাড়ির মোহাম্মদ আলী বেপারীর বিরুদ্ধে। গতকাল রাত ২টার সময় মোহাম্মদ আলী বেপারী চাচাতো ভাই শুকুর আলী বেপারীর বসত বাড়ির পরিত্যাক্ত ঘর ভেঙ্গে নেয়।এ সময় বাড়ির উঠানে থাকা ফলজ ও কাঠের গাছ কেটে ফেলে।এ ঘটনায় শুকুর বেপারীর পিতা গিয়াস উদ্দিন বেপারী আতহ হয়ে শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে।

স্থানীয় ও পারিবারিক সূত্র জানায়, গিয়াস উদ্দিন বেপারী ও মিয়া চান বেপারী আপন ভাই হিসাবে একই বাড়িতে বসবাস করে।কিছুদিন পূর্বে স্থানীয় চেয়াম্যান ও গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত থেকে গিয়াস উদ্দিন বেপারীর ও মিয়াচান বেপারীর ওয়ারিশদের মধ্যে জমি পরিমাপ করে সীমানা পিলার স্থাপন করে দেয়।এতে মিয়াচান বেপারীর ওয়ারিশ মোহাম্মদ আলী বেপারী, শাহ আলম বেপারী, আজাহার বেপারী ও শাজাহান বেপারীদের সমস্য হয়।

এ নিয়ে উভয় পরিবারের মধ্যে দ্বন্দ্ব চলছে।গত শনিবার রাতে মোহাম্মদ আলী বেপারী তার ভাইদের নিয়ে গিয়াস উদ্দিন বেপারীর বাড়িতে প্রবেশ করে একটা পরিত্যাক্ত ঘর ভেঙ্গে নেয়।এ সময় বাড়ির উঠানে থাকা ফলের গাছ সহ প্রায় ২০টি ছোট-বড় কাঠের গাছ কেটে ফেলে।বাধা দেয়ায় গিয়াস উদ্দিন বেপারীকে মারধর ও তার বসত ঘরের বেড়া কোপায়।গিয়াস উদ্দিন বেপারীর চিৎকারে প্রত্র মিনু আক্তার বেরিয়ে আসলে তার গলায় থাকা স্বর্ণের চেই ছিরে নেয় এবং ঘরে ঢুকে নগদ ৩৭ হাজার টাকা নিয়ে যায়।

শুকুর বেপারী বলেন, আমি ঢাকায় একটি দোকানে লেবারের কাজ করি। গত শুক্রবার দুপুরে মোহাম্মদ আলী বেপারীদের বাড়িতে একটা ঘরে চুরি হয়।সেই ঘটনার জেরে শনিবার রাতে আমার বাড়িতে ২০/২৫ জন লোক নিয়ে ভাংচুর, লুট করে।গাছ কেটে এবং ঘর ভেঙ্গে নেয়।আমি থানায় অভিযোগ করেছি।

মোহাম্মদ আলী বেপারীর স্ত্রী ফিরোজা জানায়, শুকুর সকাল ৭টার দিকে নিজের ঘর ভাংচুর করে।ঘর ভেঙ্গে নেয় এবং গাছ কাটে।আমার স্বামী ও দেবর বাড়িতে ছিল।তাদের ভয় দেখিয়ে তাড়িয়ে দেয়।তারা এখনও বাড়ি আসতে পারেনি।পালং মডেল থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মনিরুজ্জামান বলেন, এমন একটা ঘটনা শুনেছি।এখনও পর্যন্ত কেউ অভিযোগ করেনি।

 

 

 

 

কিউএনবি/সাজু/২রা সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং/রাত ৯:০০

Please follow and like us:
0
Social media & sharing icons powered by UltimatelySocial