১৭ই নভেম্বর, ২০১৮ ইং | ৩রা অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | বিকাল ৫:০১

কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে ভিক্ষুকের মেয়েকে বিয়ের প্রলোভন দিয়ে ধর্ষণ করেছে প্রভাবশালী যুবক

 

মো. সাইদুল আনাম,কুষ্টিয়া প্রতিনিধি : কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে ভিক্ষুকের মেয়েকে বিয়ের প্রলোভন দিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণ করেছে আরিফ হোসেন (২৪) নামে প্রভাবশালী এক যুবক।এ ঘটনায় রবিবার দুপুরে ধর্ষিতা দৌলতপুর থানায় ধর্ষণের অভিযোগ করেছে।

অভিযোগে উল্লেখ রয়েছে, উপজেলার রিফায়েতপুর ইউনিয়নের নওদাপাড়া গ্রামের ভিক্ষুক চান্দু’র মেয়ে জোনাকী আক্তারের (১৮) সাথে পার্শ্ববর্তী জোয়ার্দ্দারপাড়া গ্রামের বক্কর মন্ডলের ছেলে আরিফ হোসেনের প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে।

এরই সূত্র ধরে গত বুধবার (২৯ আগষ্ট) রাত ১১টার দিকে আরিফ হোসেন ভিক্ষুক চান্দুর বাড়িতে গোপনে প্রবেশ করে তার মেয়েকে বিয়ের প্রস্তাব দেয়। জোনাকী আক্তার বিয়ের প্রস্তাবে রাজি হলে তাকে নিয়ে আরিফ হোসেন বাড়ির পার্শ্ববতী একটি বাগানে যায় এবং তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। এসময় ধর্ষিতা চিৎকার ও কান্নাকাটি শুরু করলে ধর্ষক আরিফ হোসেন পালিয়ে যায়।

পরে ধর্ষিতা বাড়ি ফিরে বিষয়টি তার পরিবারের লোকজনকে জানালে ভিক্ষুক চান্দু ধর্ষনের ঘটনা স্থানীয় ইউপি সদস্য মানিক মেম্বর ও গন্যমান্য ব্যক্তিদের জানায়। তবে তারা প্রভাবশালী আরিফ হোসেনের বিরুদ্ধে ধর্ষনের বিচার না করে বিষয়টি ধামা চাপা দিতে গড়িমসি করে।

তাই কোন উপায় খুঁজে না পেয়ে ধর্ষিতা জোনাকী আক্তার তার ধর্ষনের বিচার চেয়ে ধর্ষক আরিফ হোসেন ও তার পিতা বক্কর মন্ডলের নামে দৌলতপুর থানায় এজাহার দেয়।

এ ব্যাপারে রিফায়েতপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান জামিরুল ইসলাম বাবু জানান, ঘটনা টি তিনি শুনেছেন ও ঘটনার সত্যতা পাওয়া গেছে।এবিষয়ে দৌলতপুর থানার ওসি শাহ দারা খান বলেন, অভিযোগ পেয়েছি। বিষয়টি তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

 

 

 

 

কিউএনবি/সাজু/২রা সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং/সন্ধ্যা ৬:০০