২১শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং | ৬ই আশ্বিন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | সকাল ৮:১৫

দেবিদ্বারে পরকিয়ায় বাধা দেওয়ায় স্ত্রীকে পিটিয়ে হত্যা

 

ডেস্ক নিউজ : কুমিল্লার দেবিদ্বারে স্বামীর পরকিয়ায় বাধা দেওয়ায় স্ত্রীকে রড দিয়ে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। বোরবার বিকালে সাড়ে ৫টায় উপজেলার বাগুর পশ্চিম পাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত গৃহবধূর নাম রুমি আক্তার (২৮)। সে ওই গ্রামের আব্দুস সাত্তার কালামের স্ত্রী। মামলার বিবরণে জানা যায়, স্বামী আব্দুস সাত্তার কালামের সাথে দিনাজপুরে এক নারীর প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে এ নিয়ে ঘরে প্রায়ই সন্তানদের সামনেই স্ত্রীকে মারধর করতো।

বড় মেয়ে সামিয়া আক্তার ও লামিয়া আক্তার মাকে মারধর করতে নিষেধ করলেও শুনতো না। ঘটনার দিন মোবাইল ফোনে দিনাজপুরের ওই নারীর এসএমএস এর সূত্র ধরে স্ত্রী রুমি আক্তার কালামকে জিজ্ঞাসা করতেই ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে কালাম। এক পর্যায়ে স্ত্রীকে রড দিয়ে শরীরের বিভিন্ন জায়গা ও মাথায় পিটালে মাথা থেকে প্রচুর রক্তক্ষরণ হয়। পরে আহত রুমি আক্তাকে  অজ্ঞান অবস্থায় চান্দিনা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হয়। পরে সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক রুমিকে মৃত ঘোষণা করেন। পরে এ্যাম্বুলেসে স্ত্রীর লাশ রেখেই পালিয়ে যায় কালাম।
রুমি আক্তারের বারো বছরের মেয়ে সামিয়া আক্তার জানান, ‘আমার মাকে বাবা প্রায়ই আমাদের সামনেই মারধর করতো। মাকে না মারার জন্য বাবার পায়ে ধরলেও বাবা শুনতো না। আমার মাকে হত্যাকারী পাষণ্ড বাবার বিচার চাই।’ এ ব্যাপারে দেবিদ্বার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সরকার আবদুল্লাহ আল মামুন জানান, ‘আমি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। নিহত রুমি আক্তারের মাথায় আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে তাকে নির্যাতন করে হত্যা করা হয়েছে। লাশ মর্গে পাঠানো হয়েছে সুরতহালের রিপোর্ট পাওয়া গেলে প্রকৃত রহস্য উদঘাটন হবে। এ ঘটনায় দেবিদ্বার থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে।
কিউএনবি/অায়শা/২৭শে আগস্ট, ২০১৮ ইং/রাত ১০:১৬