১৯শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং | ৪ঠা আশ্বিন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | সকাল ১১:৩৭

সামরিক শক্তি বাড়াচ্ছে ইরান

 

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে চলমান উত্তেজনার মধ্যেই নিজের সামরিক শক্তি বৃদ্ধি করার কথা জানিয়েছে ইরান। এছাড়া একটি যুদ্ধবিমানও উন্মুক্ত করেছে দেশটি। ইরানের প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি বলেছেন, ইরানের সামরিক শক্তিই হামলা চালানো থেকে যুক্তরাষ্ট্রকে নিরুৎসাহিত করবে। তিনি বলেন, ডোনাল্ড ট্রাম্পের আমলে ওয়াশিংটন নিজেদের মিত্রদের মধ্যেই বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে।

রুহানি বলেন, যে সামরিক শক্তি আমাদের ভূখণ্ড সম্পদ দখল করতে আসবে, তাদের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে আমাদের নিজেদের প্রস্তুত রাখতে হবে। বুধবার জাতীয় সামরিক প্রতিরক্ষা দিবস উপলক্ষে মঙ্গলবার এক টেলিভিশন ভাষণে তিনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্র কেন আমাদের হামলা করছে না? কারণ আমাদের সক্ষমতা। তারা জানে, আমাদের হামলা করলে তাদেরকে পরিণতি ভোগ করতে হবে।

গত সপ্তাহে ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহ আলী খামেনেই বলেন, তেহরানের সামরিক শক্তির কারণেই যুক্তরাষ্ট্রের উচিত যে কোনো লড়াই এড়িয়ে যাওয়া। নতুন পারমাণবিক চুক্তির জন্য ডোনাল্ড ট্রাম্পের নিঃশর্ত আলোচনার প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করেছেন খামেনেই। তিনি বলেন, তারা যদি আলোচনায় বসতে চায়, ভাল। কিন্তু যদি অনাগ্রহী হয়, সেটাকেও আমরা গুরুত্ব দেই না।

গত মে মাসে তেহরানের সঙ্গে বহুপক্ষীয় পারমাণবিক চুক্তি থেকে ডোনাল্ড ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্রকে প্রত্যাহার করে নেয়ার পর দুই দেশের মধ্যে চরম উত্তেজনা চলছে। এর মধ্যে ইরানের বিরুদ্ধে নতুন বাণিজ্য নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট।

 

 

কিউএনবি/আয়শা/২২শে আগস্ট, ২০১৮ ইং/রাত ১০:৫০