১৯শে নভেম্বর, ২০১৮ ইং | ৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | সকাল ৯:৩৬

রোহিঙ্গা ক্যাম্পের পাশে ২ ‘মাদক ব্যবসায়ীর’ গলাকাটা লাশ

 

ডেস্কনিউজঃ কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলায় একটি রোহিঙ্গা শরণার্থী ক্যাম্পের পাশের একটি পাহাড়ি এলাকা থেকে দুই ব্যক্তির গলাকাটা লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

পুলিশ দাবি করেছে, এদের একজন বাঙালি শামসুল হুদা, অপরজন রোহিঙ্গা নাগরিক রহিম উল্লাহ। তাঁরা উভয়েই মাদক কারবারের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন।

শামসুল হুদার বাড়ি টেকনাফ উপজেলায়। তিনি পুলিশের তালিকাভুক্ত মাদক ব্যবসায়ী। আর রহিম উল্লাহ হ্নীলা ইউনিয়নের লেদা রোহিঙ্গা শিবিরের বি-ব্লকের বাসিন্দা। রহিম, শামসুল হুদার সহযোগী হিসেবে কাজ করতেন বলেও দাবি করা হয়েছে পুলিশের পক্ষ থেকে।

কক্সবাজারের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. আফরুজুল হক টুটুল দুপুরে গণমাধ্যমের কাছে দাবি করেন, ‘প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, ইয়াবা ব্যবসার বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের লোকজন এ দুজনকে গলা কেটে হত্যা করতে পারে।’

পুলিশের পক্ষ থেকে আরো দাবি করা হয়েছে, দুপুরে লেদা রোহিঙ্গা শিবিরের পাশে পাহাড়ি এলাকা কাঠুরিয়ারায় দুটি গলাকাটা লাশ দেখে লোকজন পুলিশে খবর দেয়। পরে পুলিশ দুপুর ২টার দিকে লাশ দুটি উদ্ধার করে।

পুলিশ প্রকৃত ঘটনা উদঘাটনে তদন্ত চালাচ্ছে। লাশ দুটি ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে বলে জানান কক্সবাজারের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার।

 

কিউএনবি/বিপুল/ ১৩.০৭.২০১৮/সন্ধ্যা ৭:১০