১৫ই নভেম্বর, ২০১৮ ইং | ১লা অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | সন্ধ্যা ৬:৪১

ফয়সাল হাবিব সানি’র প্রেমের গুচ্ছ অণুকাব্য

১. বুকের ভেতর রোদ্রের খড়া, চৈত্র পুড়ে যাক
বুকের ভেতর ম্যাজিক কিছু, একটা হৃদয় থাক!
বুকের ভেতর এক রমণী, এক নারীরই প্রেমে
জন্ম অামার স্বর্গ হতে ধূলায় অাসুক নেমে

২. প্রেমকে মহৎ করে চোখের জল, তেমনি চোখের জলকে মহৎ করে তোলে এক একটি হৃদয়;
মানুষ জন্মলব্ধ প্রেমমত্ত প্রাণি- তাই সে চোখের জলকে এড়িয়ে প্রেমে প্রবেশ করতে পারে না। অার পারে না বলেই চোখের জলে বুনে চলে তার জীবনের অর্ধেকেরও বেশি একটা অধ্যায়!

৩. এভাবে চলে গেলে ঠিক ছেড়ে যাও
যতোটুকু ছেড়ে গেছো, ঠিক ফিরে যাও
কতোটুকু কাছে তুমি- না দেখা অন্ধ হৃদয় জানে
অাসলে প্রেম মানে মিলন নয়, না দেখা অদ্ভুত হৃদয়ের মানে!

৪. ঈশ্বর অাপনি অামায় ভালোবাসার অনুমতি দিন- প্রেমে, ধ্যানে ও প্রার্থনায়
একটিবার প্রত্যেক মানুষকে অাপনি প্রেমিক করে দিন- যেমনটি অনন্তকাল `সে’ অামি অার `অামি’ সে রয়ে যায়।

৫. অামি জানি না, তুমি চলে গেছো, নাকি অাছো?
বুকে হাত রাখতেই হৃদয় বলেছে, তুমি তাকে ছুঁয়ে কী অসহ্যরকম বাঁচো!

৬. নারী তোমার সাথে কোনো জন্মে কোনো বার কোনোদিন কখনো দেখা হলে তোমার বুকের ওড়না নয়, হৃদয়-ই ছিনিয়ে অানবো।

৭. বিরহী প্রেমিক জেনেছে, বারবার মরেও সে বারবার জন্ম নিয়েছে প্রেমে।

৮. তুমি কি অামায় ভালোবাসো?
শোনো তবে ভালোবাসলে এবার অার গোলাপ নয়, হৃদয় নিয়ে অাসো।

৯. অামার এমন কষ্ট হচ্ছে কেনো! মুক্তার বিরহে গুটিয়ে যাচ্ছি ঝিনুক
অামার কষ্টের অসুখ কেউ না দেখুক; অন্তত তোমার মন, তোমার ভেতর, তোমার বুকের ঘরের বারান্দা জানুক।

১০. অামার ঈশ্বর অাবারও জেনেছে, অামি তোমায় ছাড়া বাঁচব না! তেমনি জলের মাছ বাঁচে না জলহীন
তেমনি তোমায় ছাড়া সবটুকুই পুরোটা অামার জন্মমাত্র লীন!

১১. অামার সাগর হতে এখন খুবই ইচ্ছে
তবু কে যেন কে বুকের স্রোতে দিচ্ছে ভয়!
অামার খুবই ইচ্ছে হয়- তোমার ভেতর, তোমার মাঝে চুপটি করে লুকিয়ে থাকি
না হয় অামার পাঁজর খসা রক্ত দিয়ে ইচ্ছেমতোই তোমাকে রাঙায়, তোমাকে অাঁকি।

কিউএনবি/নিল/২৭/জুন/১৮ঃ৫৪