২১শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং | ৬ই আশ্বিন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | রাত ১২:৩৫

থানায় এএসআইকে মারধরঃ আ.লীগ নেতা গ্রেপ্তার

 

ডেস্কনিউজঃ আটক আসামিকে ছেড়ে দিতে রাজি না হওয়ায় থানায় ঢুকে পুলিশের এক সহকারী উপ-পরিদর্শককে (এএসআই) মারধরের অভিযোগে গ্রেপ্তার হয়েছেন ময়মনসিংহের গৌরীপুরের এক আওয়ামী লীগ নেতা।শনিবার (০৯জুন) সকালে গৌরীপুর থানার এ ঘটনার সময় গ্রেপ্তার মো. রোকনুজ্জামান পল্লব গৌরীপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক।ময়মনসিংহের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (গৌরীপুর সার্কেল) সাখের হোসেন সিদ্দিকী গণমাধ্যমকে এ তথ্য জানান।

পুলিশ জানায়, গৌরীপুর থানার এএসআই মো. হাসানুজ্জামান হাসান শুক্রবার রাতে মাদকবিরোধী অভিযান চালিয়ে মাদক সেবনরত অবস্থায় পৌর এলাকার একটি মহল্লা থেকে গাঁজাসহ আটক করেন তিন ব্যক্তিকে। পরে তাদের ছাড়িয়ে নিতে শনিবার বেলা ১১ টার দিকে থানায় যান গৌরীপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. রোকনুজ্জামান পল্লব।

এক পর্যায়ে এএসআই হাসানুজ্জামানের কাছে তিন ব্যক্তিকে ধরে আনার কারণ জানতে চান পল্লব। গাঁজাসহ ওই তিন ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে জানালে এএসআইয়ের ওপর ক্ষিপ্ত হন আ’লীগ নেত। এরপর তিনি আটক তিন ব্যক্তি মাদক সেবন করেননা চ্যালেঞ্জ করে পুলিশকে তাদের ছেড়ে দিতে বলেন। তবে হাসানুজ্জামান মাদকসেবীদের ছাড়তে রাজি না হওয়ায় তাদের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয়।

থানা পুলিশ জানায়, এসময় আ’লীগ নেতা পল্লব এএসআই হাসানুজ্জামানের কলার ধরে টানাটানি শুরু করেন এবং মারধর করেন। এক পর্যায়ে অন্য পুলিশ সদস্যরা ছুটে গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করে পল্লবকে আটক করেন।

এ ঘটনা প্রসঙ্গে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সাখের হোসেন সিদ্দিকী বলেন, শুক্রবার রাতে তিন মাদকসেবীকে গ্রেপ্তার করেন এএসআই হাসানুজ্জামান। কিন্তু শনিবার সকাল ১১ টার দিকে থানায় এসে আওয়ামী লীগ নেতা পল্লব তাদের ছাড়িয়ে নিদে তদবির শুরু করেন। এক পর্যায়ে পুলিশ সদস্যকে কলার ধরে টানাটানি করেন আওয়ামী লীগ নেতা পল্লব। এ ঘটনায় তাকে আটক করা হয়েছে। পুলিশের গায়ে হাত দেওয়ায় তার বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানান তিনি।

 

রামিম/৯ই জুন, ২০১৮ ইং/সন্ধ্যা ৭:৪৭