১৮ই আগস্ট, ২০১৮ ইং | ৩রা ভাদ্র, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | রাত ১০:১০

২০০ বছর পর পৃথিবী থেকে হারিয়ে যাবে যেসব প্রাণি!

 

ডেস্ক নিউজ : প্রাকৃতিক বিপর্যয় ও পরিবেশ ধ্বংসের কারণে হুমকির মুখে পড়েছে পৃথিবীর জীববৈচিত্র্য। এরই মধ্যে আরেক সতর্কবাণী শুনিয়েছেন গবেষকরা। গবেষকদের দাবি,আর মাত্র ২০০ বছর। এর মধ্যেই পৃথিবী থেকে হারিয়ে যাবে হাতি, গণ্ডার, জিরাফ, বাঘ, বাইসনের মতো বড় আকারের স্তন্যপায়ী প্রাণীরা। 

ঠিক যেমন বইয়ের পাতায় এখন ম্যামথের ছবি দেখি আমরা, সেরকমই বইয়ের পাতাতেই টিকে থাকবে আজকের পৃথিবীর অতি পরিচিত এই সব প্রাণী। আর বড় আকারের সব স্তন্যপায়ী পৃথিবী থেকে হারিয়ে যাওয়ায় তখন গরুই হবে বৃহত্তম স্থলচর প্রাণী। 

ইউনিভার্সিটি অফ নিউ মেক্সিকোর বায়োলজিস্ট ফেলিসা স্মিথের নেতৃত্বাধীন গবেষক দলের একটি নিবন্ধ ‘সায়েন্স’ পত্রিকায় গত বৃহস্পতিবার প্রকাশিত হয়েছে। সেখানে বলা হয়েছে যে শুধুমাত্র প্রাকৃতিক দুর্যোগেই যে পৃথিবী থেকে বড় আকারের স্তন্যপায়ী প্রাণী হারিয়ে গিয়েছে, তা নয়। এর পেছনে মানুষ একটা বড় কারণ। ঠিক যে সময় থেকে আধুনিক মানুষের পূর্বপুরুষ হোমো সেপিয়েন্স-এর আবির্ভাব হয়, তার পর থেকেই ধীরে ধীরে মুছে যেতে থাকে ম্যামথ, গ্লিপটোডন, স্মিলোডনের মতো বৃহদাকার প্রাণীরা। 

শিকার এবং খাদ্য ও বাসস্থানের অভাবে ক্রমশ বিলুপ্তির পথে হাঁটছে এই সব প্রাণীরা। 

গবেষকরা জানান, কোনও প্রজাতির প্রাণী বিলুপ্ত হয়ে যাওয়ার অর্থ এই নয় যে সেই প্রজাতির প্রত্যেকটি প্রাণীকে মানুষ ধরে ধরে হত্যা করেছে। একটি নির্দিষ্ট প্রজাতির প্রাণী বছরে যতগুলি করে জন্মায়, তার চেয়ে বেশি মারা গেলেও, কয়েকশো বছরের মধ্যেই বিলুপ্ত হয়ে যাবে। আর বৃহদাকার স্তন্যপায়ী প্রাণীর রিপ্রোডাকশনেও অনেকটা সময় লাগে। যেমন একটি হাতির বাচ্চা তার মায়ের গর্ভে বেড়ে উঠতে ২ বছর সময় নেয়। তাই এখনও সাবধান না হলে সামনেই অপেক্ষা করছে বড় বিপদ। 

কিউএনবি/রেশমা/২৩শে এপ্রিল, ২০১৮ ইং/সকাল ৮:৫৪