২১শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং | ৬ই আশ্বিন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | সকাল ৮:১৪

পাইকগাছায় যথাযোগ্য মর্যাদায় মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উদযাপিত

 

মোঃ আব্দুল আজিজ, পাইকগাছা, খুলনা : পাইকগাছায় যথাযোগ্য মর্যাদায় মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস- ২০১৮ উদযাপিত হয়েছে। দিবসটি উপলক্ষে সোমবার প্রত্যুষে উপজেলা প্রশাসন, সংসদ সদস্য, উপজেলা পরিষদ, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ, পৌরসভা, থানা, লোনাপানি কেন্দ্র, আ’লীগ, বিএনপি, জাতীয় পার্টি, জাকের পার্টি, কমিউনিস্ট পার্টি, পাইকগাছা কলেজ, ফসিয়ার রহমান মহিলা কলেজ, উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স, সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়, সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, আইনজীবী সমিতি, প্রেসক্লাব, মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম, বনানী সংঘ, উপকূল সাহিত্য পরিষদ, শিব্সা সাহিত্য অঙ্গন, দূর্নীতি প্রতিরোধ কমিটি, বঙ্গবন্ধু শিক্ষা ও গবেষণা পরিষদ, হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদ, পূজা পরিষদ, ষোলআনা ব্যবসায়ী সমিতি, চিংড়ি বিপনন সমবায় সমিতি সহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের পক্ষ থেকে স্মৃতিসৌধে পুষ্পস্তবক অর্পন করা হয়।

এরপর সকাল সাড়ে ৮ টায় পাইকগাছা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে প্রধানমন্ত্রীর জাতীয় সংগীত পরিবেশন সম্প্রচার, কুচকাওয়াজ, দূর্নীতি বিরোধী ডিসপ্লে, পোস্টার প্রদর্শন, শপথ বাক্য পাঠ ও শরীরচর্চা প্রদর্শন করেন মুুক্তিযোদ্ধা, পুলিশ, আনসার ও ভিডিপি, রোভার, স্কাউটস, গালর্স গাইড ও বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা।

সকাল ১০টায় উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে শিশুদের মধ্যে মুক্তিযুদ্ধ ভিত্তিক চিত্রাংকন ও রচনা প্রতিযোগিতা, ১১ টায় মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স মিলনায়তনে মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সংবর্ধনা প্রদান করা হয়, বিকাল সাড়ে ৪ টায় সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে উপজেলা প্রশাসন একাদশ বনাম পৌর একাদশের মধ্যে প্রীতি ফুটবল ও সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে মহিলাদের ক্রীড়া অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

সন্ধ্যা ৭ টায় উপজেলা পরিষদ চত্ত্বরে “জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণের তাৎপর্য ও উন্নয়ন অগ্রগতি” বিষয়ক আলোচনা সভা ও সবশেষে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠিত হয়। উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফকরুল হাসানের সভাপতিত্বে দিনব্যাপি পৃথক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন স্থানীয় সংসদ সদস্য এ্যাডঃ শেখ মোঃ নুরুল হক।

বিশেষ অতিথি ছিলেন, উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাডঃ স ম বাবর আলী, পৌর মেয়র সেলিম জাহাঙ্গীর, ওসি আমিনুল ইসলাম বিপ্লব, ওসি (তদন্ত) এসএম শাহাদাৎ হোসেন, ওসি অপারেশন প্রবীন চক্রবর্তী, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার শেখ শাহাদাৎ হোসেন বাচ্চু, ডেপুটি কমান্ডার আব্দুর রাজ্জাক মলঙ্গী, উপজেলা চেয়ারম্যান পত্নী শাহীনা বাবর, আ’লীগনেতা আলহাজ্ব শেখ মনিরুল ইসলাম, অধ্যক্ষ রবিউল ইসলাম, মিহির বরণ মন্ডল, প্রধান শিক্ষক অজিত কুমার সরকার, আব্দুল গফফার, উপজেলা কৃষি অফিসার এএইচএম জাহাঙ্গীর আলম, প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ জাহিদ ইকবাল, সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা পবিত্র কুমার দাস, উপজেলা স্বাস্থ্য ও প প কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) ডাঃ সুজন কুমার সরকার, মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার জয়নাল আবদীন, শিক্ষা অফিসার গাজী সাইফুল ইসলাম, সমাজসেবা কর্মকর্তা সরদার আলী আহসান, যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা রেজাউল করিম, দূর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সাধারণ সম্পাদক জিএমএম আজাহারুল ইসলাম, উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি মোস্তফা কামাল জাহাঙ্গীর, উপজেলা বিএনপি’র আহবায়ক ডাঃ আব্দুল মজিদ, পৌর আহবায়ক এ্যাঃ জিএম আব্দুস সাত্তার, ব্যারিস্টার নেওয়াজ মোরশেদ সহ বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা, মুক্তিযোদ্ধা, রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন এ্যাডঃ শফিকুল ইসলাম কচি, সহকারী শিক্ষা অফিসার শোভা রায়, প্রভাষক ময়নুল ইসলাম, লুৎফা ইসলাম, মাসুদুর রহমান মন্টু, রেবা আক্তার কুসুম ও বজলুর রহমান।

 

 

 

 

কিউএনবি/সাজু/২৬শে মার্চ, ২০১৮ ইং/রাত ৮:০৪