২১শে নভেম্বর, ২০১৮ ইং | ৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | রাত ৮:৪২

প্রধান শিক্ষক ছাড়াই চলছে ৫৯১টি প্রাথমিক বিদ্যালয়

 

সিরাজগঞ্জ জেলার ৫৯১টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দীর্ঘদিন ধরে প্রধান শিক্ষক ছাড়াই চলছে একাডেমিক ও প্রশাসনিক কার্যক্রম।এসব বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষকরা ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক হিসেবে কাজ করছেন। ফলস্বরূপ, ঐ প্রতিষ্ঠানে একাডেমিক এবং প্রশাসনিক উভয় কার্যক্রম বিপর্যয়ের মুখে। খবর ইউএনবি।

জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস সূত্রে জানানো হয় যে, দীর্ঘদিন ধরে জেলার নয়টি উপজেলায় ১ হাজার ৬৬৮টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রায় ৫৯১টি প্রধান শিক্ষক ও ৪৬১টি সহকারী শিক্ষকের পদ খালি রয়েছে।

এই নয়টি উপজেলা হল- সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলায় ৭২টি প্রধান শিক্ষক ও ২২টি সহকারী শিক্ষকের পদ, কামারখান্দ উপজেলায় ২২টি প্রধান শিক্ষক ও ২৯টি সহকারী শিক্ষকের পদ, কাজিপুর উপজেলায় ৯৪টি প্রধান শিক্ষক ও ৮৭টি সহকারী শিক্ষকের পদ, রায়গঞ্জ উপজেলায় ৭১টি প্রধান শিক্ষক ও ১৭টি সহকারী শিক্ষকের পদ, তারাশ উপজেলায় ৪৭টি প্রধান শিক্ষক ও ২২টি সহকারী শিক্ষকের পদ, উল্লাপাড়া উপজেলায় ৭৮টি প্রধান শিক্ষক ও ৫১টি সহকারী শিক্ষকের পদ, শাহজাদপুর উপজেলায় ৯৬টি প্রধান শিক্ষক ও ৮৯টি সহকারী শিক্ষকের পদ, বেলকুচি উপজেলায় ৬৫টি প্রধান শিক্ষক ও ৫৭টি সহকারী শিক্ষকের পদ এবং চৌহলি উপজেলায় ৪৬টি প্রধান শিক্ষক ও ৮৭টি সহকারী শিক্ষকের পদ খালি রয়েছে।

জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার সিদ্দিক মোহাম্মদ ইউসুফ রেজা বলেন, ‘এসব প্রাথমিক বিদ্যালয়ের খালি পদ পূরণের জন্য প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হচ্ছে।’

 

কিউএনবি/অদ্রি আহমেদ/২৪.৩.১৮/১১.১৪