১০ই ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং | ২৬শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | রাত ৯:৩০

বিএনপির মরা গাঙে আর জোয়ার আসবে না

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপি তাঁদের গঠনতন্ত্র থেকে রাতের আঁধারে এক কলমের খোঁচায় ৭ ধারা কেটে দিয়েছে। সেই ধারায় বলা আছে, কোনো দণ্ডিত দুর্নীতিবাজ বিএনপি করতে পারবে না। তাই দুর্নীতিবাজ দণ্ডিত খালেদা জিয়াকে বাঁচাতে তারা গঠনতন্ত্রই বদলে ফেলেছে। তাই তারা দুর্নীতিকে স্বীকৃতি দিয়েছে। তাই তারা আত্মস্বীকৃত দুর্নীতিবাজ।

আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে মোসলেহ উদ্দিন ভুইয়া স্টেডিয়ামে নরসিংদী জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপির মরা গাঙে আর কখনো জোয়ার আসবে না। গত নয় বছর ধরে শুধু আন্দোলনের কথা শুনছি। কখনো দেখি নাই আন্দোলন করতে। তাঁরা শুধু বলছে আন্দোলন এই মাস না ওই মাস। রোজার ঈদ পর না, কোরবানীর ঈদ পর। এরপর আবার বলে পরীক্ষার পর। এরকম করতে করতে নয় বছর পার করে দিয়েছে। এ রকম করতে করতে বিএনপি এখন দেউলিয়ার দল হয়ে গেছে।

প্রধান অতিথি আরো বলেন, মনোনয়প্রত্যাশীদের বলছি আপনাদের ওপর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছয় মাস পর পর জরিপ করছেন। যারা জরিপে এগিয়ে থাকবেন, তারাই মনোনয়ন পাবেন। জবরদস্তি করে কেউ মনোনয়ন পাবেন না। আর আপনারা কেউ দলের নাম ব্যবহার করবেন না- যে নেত্রী আমাকে গ্রিন সিগন্যাল দিয়েছে, দলের সাধারণ সম্পাদক আমাকে কানে কানে বলছে কাজ করার জন্য। প্রার্থী হন কিন্তু দলের ক্ষতি করবেন না। আপনারা একে অপরের অপপ্রচার করবেন না। দলের কারো সঙ্গে সম্পর্ক নষ্ট করবেন না। যাতে পরে তা প্রভাব না পড়ে। দলের প্রার্থী এখন নৌকা।

জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পানিসম্পাদ প্রতিমন্ত্রী নজরুল ইসলামের সভাপতিত্বে জনসভায় বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা মণ্ডলীর সদস্য মোজাফফর হোসেন পল্টু, মুকুল বোস, শ্রম বিষয়ক সম্পাদক হাবিবুর রহমান সিরাজ, কেন্দ্রীয় কার্য নির্বাহী সদস্য সাংসদ নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন, আকতারুজ্জামান, রিয়াজুল কবির কাওছার, কেন্দ্রীয় যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক হারুন অর রশীদ, সাংসদ সিরাজুল ইসলাম মোল্লা, সাবেক সাংসদ আনোয়ারুল আশরাফ খান দিলীপ, জহিরুল হক ভুইয়া মোহন, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আবদুল মতিন ভুইয়া, নরসিংদী পৌর মেয়র কামরুজ্জামান কামরুল প্রমুখ।