২১শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং | ৬ই আশ্বিন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | দুপুর ২:০০

আখ বন্ধ করে তুলা চাষের পরামর্শ অর্থমন্ত্রীর

 

ডেস্ক নিউজ : পোশাকশিল্পে কাঁচামালের আমদানি নির্ভরতা কমানোর জন্য তুলা চাষের জন্য জমির পরিমাণ বাড়িয়ে সরকারি চিনিকল বন্ধের পরামর্শ দিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত।

আজ শুক্রবার রাজধানীতে ‘আন্তর্জাতিক কটন সামিটে’র উদ্বোধন অনুষ্ঠানে অর্থমন্ত্রী এ কথা বলেন।

দেশে সরকারি মালিকানাধীন ১৫টি চিনিকল রয়েছে, যা অর্থনীতির জন্য বোঝা হয়ে দাঁড়িয়েছে বলে মনে করছে সরকারের একটি অংশ। আখ চাষ করে চিনি উৎপাদন করতে দীর্ঘদিন ধরেই লোকসান গুনতে হচ্ছে এসব কারখানাকে। তাই চিনির স্বাদ অর্থনীতির জন্য ক্রমেই তেতো হয়ে যাচ্ছে বলে মনে করছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। তাঁর মতে, আখ উৎপাদন করতে যত পরিমাণ জমি ব্যবহৃত হচ্ছে, তা তুলা চাষের জন্য ব্যবহার করলে বাড়বে মূল পোশাক খাতের মূল্য সংযোজন।

অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘বর্তমান সময়ে অর্থহীন শস্য আখের বদলে তুলা চাষ করা যেতে পারে। এটা বর্তমানে এ দেশের জন্য অলাভজনক প্রতিষ্ঠান। আখভিত্তিক চিনি উৎপাদন থেকে বেরিয়ে আসার প্রয়োজন। আর এতে তুলার জন্য জমি মিলবে।’  

বিশ্বে তুলা আমদানিকারক দেশ হিসেবে বাংলাদেশ এখন সবার শীর্ষে। পোশাকশিল্পের জন্য ব্যবহৃত ৯৭ ভাগ কটনই আসে বিদেশ থেকে। বাকি মাত্র ৩ শংতাশ কটনের চাহিদা মেটানো হয় স্থানীয় তুলার মাধ্যমে। তাই দেশেই কটন উৎপাদনে সরকারের নানা পদক্ষেপের কথা তুলে ধরেন বস্ত্র ও পাট প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম।

মির্জা আজম বলেন, ‘প্রতিটি জেলায় একটি করে দক্ষ জনবল সৃষ্টির লক্ষ্যে একটি করে টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট আমরা তৈরি করব।’

 

 

 

 

 

কিউএনবি/সাজু/২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং/সন্ধ্যা ৬:৫০