২১শে নভেম্বর, ২০১৮ ইং | ৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | সকাল ৭:৪৯

মেয়র ডাঃ আইভির ওপর হামলার ঘটনায় থানায় মামলার আবেদন; নারায়ণগঞ্জে ফিরলেন আইভি

 

হাসান মজুমদার বাবলু,নারায়ণগঞ্জ : হকার উচ্ছেদ নিয়ে নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমান ও মেয়র আইভির সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় সিটি কর্পোরেশনের পক্ষ থেকে মামলার আবেদন করা হয়েছে। সোমবার রাতে নারায়ণগঞ্জ সদর থানায় নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশনের আইন কর্মকর্তা জিএমএ সাত্তার বাদি হয়ে এ অভিযোগ দায়ের করেন।

অভিযোগে নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভীকে হত্যার চেষ্টার অভিযোগ এনে অস্ত্রধারী নিয়াজুল ইসলাম ও মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক শাহ নিজাম, মহানগর যুবলীগের সভাপতি শাহাদাৎ হোসেন সাজনু ,জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি জুয়েল, জেলা আওয়ামী লীগের জাকিরুল আলম হেলাল,বিপ্লব, সুজন সহ ৯ জনের নাম উল্লেখ করে, অজ্ঞাত ৯০০ থেকে ১০০০ জনকে আাসামী করা হয়। আজ সকালে নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানা পুলিশ লিখিত আবেদন গ্রহন করেছে বলে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ।

এ ব্যপারে নারায়ণগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোস্তাফিজুর রহমান অভিযোগের সত্যতা স্বীকার করে বলেন অভিযোগটির তদন্ত চলছে। পরবর্তিতে আইনি ব্যাবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এদিকে আজ দুপর দেড়টায় মেয়র ডা: সেলিনা হায়াৎ আইভি ঢাকার ল্যাবএইড হাসপাতাল থেকে নারায়ণগঞ্জ আসেন। নারায়ণগঞ্জে এসে মেয়র আইভি নগরের কেন্দ্রীয় কবরস্থানে তার বাবা আলী আহম্মদ চুনকার কবর জিয়ারত করেন।

উল্ল্যেখ, গত ১৬ জানুয়ারী বিকেলে নগরীর ফুটপাতে হকার বসানোকে কেন্দ্র করে সাংসদ শামীম ওসমান সমর্থকরা মেয়র আইভী ও সাংবাদিকদের ওপর হামলা চালায়। এসময় মেয়র আইভী ১২জন সাংবাদিক সহ অর্ধশতাধিক লোক আহত হয়।ঘটনার পর দিন জেলা প্রশাসন একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেন। ৭ দিমের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করতে কমিটিকে নির্দেশ দেয়া হয়।

 

 

 

 

কিউএনবি/সাজু/২৩শে জানুয়ারি, ২০১৮ ইং/বিকাল ৫:২৭