১৯শে জুলাই, ২০১৮ ইং | ৪ঠা শ্রাবণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | দুপুর ১:৩৭

পোষা সারমেয়র সঙ্গে ‘নোংরা’ সম্পর্কে জড়াল এক নারী!

নিজের পোষা কুকুরের সঙ্গে অস্বাভাবিক যৌনতায় জড়াল ৩৯ বছরের এক নারী। সে দৃশ্য আবার মোবাইল ক্যামেরায় ভিডিও হিসেবে তুলে রেখেছিল সে। যা পুলিশের হাতে পড়তেই চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে স্কটল্যান্ডের লিভিংস্টোন এলাকায়।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, লিভিংস্টোনেরই বাসিন্দা সেই নারীর নাম সুজি কেয়ার্নস। অতিরিক্ত পর্নগ্রাফি দেখার অভ্যাস ছিল তার। বিশেষ করে চাইল্ড পর্ন। আর এই আসক্তির জন্যই ধরা পড়ে যায় সে। কিছুদিন আগে পুলিশ জানতে পারে, কয়েকটি আইপি অ্যাড্রেস থেকে নিয়মিত চাইল্ড পর্নের খোঁজ চালানো হচ্ছে। এরই তদন্তে নেমে গোয়েন্দারা সুজির হদিশ পান। সোজা তার বাড়িতে হানা দেওয়া হয়।

 

সেখানে তার মোবাইল ঘেঁটে হতবাক হয়ে যান সকলে। বিকৃত পর্ন ভিডিও এবং ছবি তো ছিলই, পাশাপাশি ছিল চাইল্ড পর্নের একাধিক ছবি। সবচেয়ে বেশি অবাক গোয়েন্দারা হয়েছিলেন, কুকুরের সঙ্গে সেই নারীর যৌনতার সেই ভিডিও দেখে। সঙ্গে সঙ্গে গ্রেফতার করা হয় তাকে।

 

সম্প্রতি সুজিকে আদালতে তোলা হলে নিজের দোষ স্বীকার করে সেই নারী। আপাতত জেল হেফাজতে রাখা হয়েছে সুজিকে। তার বিরুদ্ধে অবৈধ পর্ন ফিল্ম দেখা ও নিরীহ পশুর সঙ্গে অস্বাভাবিক যৌনতার অভিযোগ আনা হয়েছে। তবে সুজির মানসিক পরিস্থিতি খতিয়ে দেখার পরামর্শ দিয়েছেন লিভিংস্টোন শেরিফ কোর্টের বিচারক।