১৯শে নভেম্বর, ২০১৮ ইং | ৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | সকাল ৬:৫৮

লক্ষ্মীপুরে স্ত্রীকে দলবেধে ধর্ষণের ঘটনায় গ্রেপ্তার ১

 

ডেস্ক নিউজ : লক্ষ্মীপুরের কমলনগরে এক নারীকে অপহরণ করে হাত-পা বেঁধে গণধর্ষণ ও চুল কেটে দেওয়ার ঘটনায় একটি মামলা হয়েছে। গ্রেপ্তার করা হয়েছে একজনকে।

তবে তাঁর সাবেক স্বামীকে আটক করা যায়নি। গত শনিবার রাতে নির্যাতিত এ নারীর মা বাদী হয়ে কমলনগর থানায় মামলা করেন। মামলায় ওই নারীর তালাক দেওয়া স্বামী আবু কালাম ও তার বন্ধু বাবলুর নাম উল্লেখ করা হয়েছে। এ ছাড়া অজ্ঞাতপরিচয় আরো এক ব্যক্তিকে আসামি করা হয়েছে।  

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, রাতেই পুলিশের অভিযানে লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার ভবানীগঞ্জ এলাকায় বাবলু আটক হয়েছে। তিনি কমলনগরের তোরাবগঞ্জ এলাকার মো. সিরাজের ছেলে। এদিকে গতকাল রবিবার সন্ধ্যা পর্যন্ত ঘটনার হোতা ওই নারীর সাবেক স্বামী আবু কালাম ওরফে বাবু মিয়াকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি পুলিশ। সকালে সদর হাসপাতালে নির্যাতনের শিকার নারীর ডাক্তারি পরীক্ষা হয়েছে। তিনি ওই হাসপাতালেই চিকিৎসাধীন।

সদর হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা (আরএমও) আনোয়ার হোসেন বলেন, ডাক্তারি পরীক্ষার প্রতিবেদন পেলে ধর্ষণের বিষয়টি নিশ্চিত করে বলা যাবে। তবে ওই নারীর শরীরের বিভিন্ন অংশে জখম ও চুল কাটার আলামত রয়েছে। তিনি এখানেই চিকিৎসা নিচ্ছেন।

কমলনগর থানার ওসি আকুল চন্দ্র বিশ্বাস জানান, অমানবিক এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। গ্রেপ্তার করা হয়েছে এজাহারভুক্ত এক আসামিকে। অন্যদের গ্রেপ্তার করতে কয়েকটি স্থানে অভিযান চালানো হয়েছে। মামলাটি গুরুত্ব সহকারে তদন্ত করা হচ্ছে বলেও ওসি জানান।

প্রসঙ্গত, গত শুক্রবার সন্ধ্যায় কমলনগর উপজেলার তোরাবগঞ্জ থেকে সিএনজিচালিত অটোরিকশার যাত্রী ওই নারীকে সহযোগীদের নিয়ে অপহরণ করে তাঁর সাবেক স্বামী আবু কালাম। পরে দুই সহযোগী নিয়ে হাত-পা বেঁধে তাঁকে রাতভর ধর্ষণ ও মারধর করে মাথার চুল কেটে দেওয়া হয়। ক্ষতিগ্রস্ত ওই নারী দুই সন্তানের জননী।

কিউএনবি /রেশমা/২০শে নভেম্বর, ২০১৭ ইং/সকাল ৯:০৬