ব্রেকিং নিউজ
৫ই ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ২০শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | রাত ১০:৪৮

যমজ সন্তান জন্ম দিয়েই বলিউডে ফিরছেন প্রীতি জিনতা

 

বিনোদন ডেস্ক : বলিউডে ড্রিম গার্ল যদি হেমা মালিনী হন তবে প্রীতি জিনতা হলেন ‘ডিম্পল গার্ল’। তার টোল পড়া গালের হাসিতে বুঁদ গোটা ইন্ডাস্ট্রি। দীর্ঘদিন বড় পর্দায় দেখা যায়নি এ তারকাকে। তবে খুব শিগগিরই বড় পর্দায় ফিরতে চলেছেন এ অভিনেত্রী। দানিশ রেনজুর সিনেমার মাধ্যমে অভিনয়ে ফিরছেন প্রীতি। সে সিনেমার নাম এখনও চূড়ান্ত হয়নি।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম ইটাইমস থেকে জানা যায়, সিনেমার শুটিং হবে কাশ্মীরে। এক কাশ্মীরি মায়ের ভূমিকায় অভিনয় করবেন প্রীতি। সিনেমার প্রি-প্রোডাকশনের কাজ শুরু হয়ে গেছে বলে জানা যায়। ২০২২ সালের প্রথমার্ধেই শুটিং হবে। যদিও সিনেমার সঙ্গে যুক্ত কোনো ব্যক্তিই এখনও বিষয়টি নিয়ে মুখ খোলেননি।

এদিকে সদ্য যমজ সন্তানের মা হয়েছেন বলিউডের জনপ্রিয় তারকা প্রীতি জিনতা। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট দিয়ে নিজেই জানিয়েছেন সেই খুশির খবর।

প্রীতি তার সোশ্যাল মিডয়ায় লিখেন, আমি সবাইকে অসাধারণ একটা খবর দিতে চাই। পরিবারে আমাদের যমজ সন্তান জয় এবং জিয়াকে স্বাগত জানাতে পেরে আমি এবং আমার স্বামী খুব খুশি। আমাদের জীবনের এ নতুন পর্ব নিয়ে আমরা উত্তেজিত। চিকিৎসক, নার্স,সারোগেট সবাইকে এ যাত্রায় আমাদের সঙ্গে থাকার জন্য অনেক ধন্যবাদ।

২০০৯ সালে ভারতের হৃষীকেশের এক অনাথ আশ্রম থেকে ৩৪ জন কন্যাসন্তান দত্তক নেন প্রীতি। তার ৩৪ বছরের জন্মদিনে এমন কাজ করে ভক্তদের মন জয় করে নিয়েছিলেন প্রীতি। এখন পর্যন্ত তাদের দেখভাল চালিয়ে যাচ্ছেন প্রীতি। তাদের সব খরচ বহন করেন প্রীতি নিজেই।

বাবার সঙ্গে প্রীতির ছিল খুব মিষ্টি সম্পর্ক। কিন্তু বাবার আদর খুব বেশি দিন পাননি অভিনেত্রী। মাত্র ১৩ বছর বয়সে বাবাকে হারান প্রীতি। সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ হারান তার বাবা দুর্গানন্দ জিনতা। তার বাবা ছিলেন ভারতীয় সেনা অফিসার। বাবার সঙ্গে একই গাড়িতে ছিলেন প্রীতির মাও। মা প্রাণে বেঁচে গেলেও দুর্ঘটনার দু’বছর পর্যন্ত শয্যাশায়ী ছিলেন প্রীতির মা নীলপ্রভা জিনতা।

বলিউডে অনেক তারকা রয়েছেন যারা স্কুলের গন্ডি কোনো রকমে পার করলেও কলেজে যাননি কোনো দিন। প্রীতি কিন্তু সেই দলে নন। ছোট থেকেই তিনি ছিলেন মেধাবী। ইংরেজিতে স্নাতক প্রীতি মাস্টার্স শেষ করেন নয়া দিল্লি থেকে। বিষয় ছিল ক্রিমিনাল সাইকোলজি। এখানেই শেষ নয়, বলিউডে তার অবদান এবং নানা মানবদরদী কাজের জন্য লন্ডন বিশ্ববিদ্যালয় থেকে তাকে ডক্টরেট সম্মানেও ভূষিত করা হয়। তিনি শুধু প্রীতি জিনতা নন। তিনি ড. প্রীতি জিনতা।

 

 

কিউএনবি/রেশমা/২০শে নভেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ/সকাল ১১:২৪

↓↓↓ফেসবুক শেয়ার করুন